শোবিজে মুগ্ধতার পথে প্রত্যাশা


প্রকাশিত: ০৯:১৬ এএম, ০৯ জুলাই ২০১৭

ছোটবেলা থেকেই নাচ, গান, অভিনয় ও কবিতা আবৃতিতে পারদর্শিতা ছিলো রাজশাহীর মেয়ে মমতাজ আলিয়া আকবরী প্রত্যাশার। পাশাপাশি পড়াশোনাতেও ছিলো প্রথম। ক্লাসের অন্যসব মেয়েদের চেয়ে তাই স্কুলের শিক্ষকরা তার দিকেই বেশি কেয়ার নিতেন।

২০০৫ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে গ্রাজুয়েশন করেছেন তিনি। তার আগে ২০০২ সালে লাক্স আনন্দধারা মিস বাংলাদেশ প্রতিযোগীতায় অংশ নিয়ে সেরা দশের মধ্যে স্থান করে নেন। সেই থেকে শুরু হয় তার মিডিয়ার আনুষ্ঠানিক যাত্রা।

এরপর একে একে প্রায় দুই ডজন নাটক ও সিরিয়ালে অভিনয় করেন । এর মধ্যো উল্লেখযোগ্য হচ্ছে চ্যানেল আইয়ে প্রচারিত ধারাবহিক ‘এ টিম’, দেশ টিভির সিরিয়াল ‘রেস্টুরেন্ট ২১’, বৈশাখটি টিভির ধারাবাহিক ‘অগ্নিপথ’, একুশে টিভির সিরিয়াল ‘মেঘের খেয়া’, আর টিভিতে ‘রান’, চ্যানেল আইয়ের ধারাবাহিক ‘দুর দেশ’ এবং খন্ড নাটক ‘শেষের রাত্রি’, আটিভির খন্ড নাটক ‘সুরঞ্জনা’, চ্যানেল ওয়ানের ধারাবাহিক ‘এ সুসাইটি’, এনটিভির ধারাবিহক ‘এবং আমি’, এবং বৈশাখী টিভির খন্ড নাটক ‘কাজল রেখা’ ইত্যাদি।

এছাড়াও দেশটিভিতে এনটিভিতে বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেছেন। কোকাকোলার একটি বিজ্ঞাপনেও মডেল হয়েছেন তিনি। কিছুদিন আগে অপূর্বের বিপরীতে বিপাশা হায়াতের রচনায় চয়নিকা চৌধুরীর পরিচালনা ‘সুরঞ্জনা’ নামের একটি নাটক প্রচার হয়েছে আরটিভির পর্দায়। নিজের কাজের ব্যস্ততা প্রসঙ্গে এ অভিনেত্রী বলেন, ‘সময়ের অভাবে খুব একটা অভিনয় করা হয় না। অভিনয়ের জন্য যতটুকু সময় পাই ভালো গল্পের নাটকে কাজ করার দিকেই মনোযোগ দেই। আগামীতেও মনোযোগ থাকবে।’

মাত্র চার বছর বয়সে প্রথম স্টেজে উঠেন প্রত্যাশা। কাজী নজরুলের ‘লিচু চোর’ কবিতা আবৃত্তি করতে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। পেয়েছিলেন সেরা পুরস্কারও। বাবা মা তার নামটিও কিছুটা বৈচিত্রভাবে রাখেন। নাম আলীয়া আকবরী প্রত্যাশা। মূলত বাবা চাইতেন মেয়ে সবদিক থেকে সেরা হবে। অন্য আট দশজন মেয়ের চেয়ে এগিয়ে যাবে সে। তাই এ নাম রাখা। শৈশব থেকেই পুরস্কার পেয়ে আসছেন তিনি। তার পুরস্কারের ঝুলিতে রয়েছে। রাজশাহী বেতারের তালিকাভূক্ত শিল্পী তিনি।

অনেক দূরের পথে স্বপ্ন নিয়ে এগিয়ে চলেছেন তিনি। সাফল্য ধরা দিক তার হাতের মুঠোয়, সেই প্রত্যাশায় অগ্রিম অভিনন্দন।

এলএ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :