পুরস্কার নেবেন, পূর্ণিমার সঙ্গে উপস্থাপনাও করবেন ফেরদৌস

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:৪৪ পিএম, ০৩ ডিসেম্বর ২০১৯

ঢাকাই সিনেমায় নানা বিভাগে অবদানের জন্য প্রতি বছর দেয়া হয় রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। গত ৭ নভেম্বর তথ্য মন্ত্রণালয় এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে ২০১৭ ও ২০১৮ সালের ‘জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার’ বিজয়ীদের নাম প্রকাশ করে।

আগামী ৮ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত থেকে ২০১৬ সালের ‘জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার’ বিজয়ী শিল্পীরা পুরস্কার গ্রহণ করবেন। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রের হল অব ফেম মিলনায়তনে এই অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে থাকবে জমকালো সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার কে কে পাচ্ছেন তা নিয়ে সবসময়ই আলোচনা হয়। তেমনি মর্যাদাপূর্ণ এই অনুষ্ঠানের উপস্থাপক কে হচ্ছেন, তা নিয়েও আগ্রহ থাকে সবার। বরাবরের মতো এবারও জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদানের মঞ্চে কার হাতে থাকবে সঞ্চালনার দায়িত্ব তা জানতে শুরু হয়েছে জল্পনা-কল্পনা।

জানা গেছে, এবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করবেন চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় মুখ ফেরদৌস ও পূর্ণিমা। আজ মঙ্গলবার তথ্য মন্ত্রণালয়ের ঘনিষ্ঠ সূত্রে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

বেশ কয়েক বছর ধরেই উপস্থাপনায় সুনাম কুড়িয়েছেন চলচ্চিত্রের এই দুই তারকা। ফেরদৌস-পূর্ণিমাকে উপস্থাপনায় একসঙ্গে দেখা গেছে বহুবার। সিনেমার মতো এই পরিচয়েও বেশ জনপ্রিয় জুটি তারা।

গত বছরের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে তারা ছিলেন সঞ্চালকের ভূমিকায়। টানা দ্বিতীয়বারের মতো এবারও এই দায়িত্ব পেতে চলছেন তারা। এ বিষয়টি নিশ্চিত করে বেশ উচ্ছ্বাস প্রকাশ করলেন ফেরদৌস।

মঙ্গলবার বিকেলে জাগো নিউজকে তিনি বলেন, ‌‘আমি ও পূর্ণিমা একসঙ্গে অনেক অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেছি। তবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের মঞ্চটা সবকিছু থেকে আলাদা। এখানে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী থাকেন। দেশের অনেক গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিরা থাকেন। সেই সঙ্গে চলচ্চিত্রের মানুষদের মিলনমেলা এটি। আশা করছি গত বছরের মতো এবারও বেশ ভালো অভিজ্ঞতা হবে।’

এদিকে উপস্থাপনার পাশাপাশি এবার ফেরদৌস সেরা নায়ক হিসেবে পুরস্কারও গ্রহণ করবেন প্রধানমন্ত্রীর হাত থেকে। বিষয়টি নিজের ক্যারিয়ারের জন্য মাইলফলক দাবি করে ‘হঠাৎ বৃষ্টি’খ্যাত এই নায়ক বলেন, ‘এটা সত্যি স্পেশাল কিছু আমার জন্য।’

জানা গেছে, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে চলচ্চিত্র তারকা ও সংগীত শিল্পীরা মনোমুগ্ধকর পরিবেশনায় মাতিয়ে রাখবেন মিলনায়তন। অনুষ্ঠানের আহ্বায়ক ও বাংলাদেশ টেলিভিশনের মহাপরিচালক হারুন অর রশিদ জানান, জমকালো আয়োজনে পারফর্ম করবেন অপু বিশ্বাস, তমা মির্জা, ববি, মাহি, নুসরাত ফারিয়া, ইমন ও জায়েদ খান। সংগীত পরিবেশন করবেন খুরশীদ আলম, মমতাজ, নকীব খান, সামিনা চৌধুরী, কণা।

প্রসঙ্গত, ঘোষণা অনুযায়ী, ২০১৭ সালের সেরা চলচ্চিত্র নির্বাচিত হয়েছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’। এই ছবির জন্য নায়ক আরিফিন শুভ'র অভিনয়কে স্বীকৃতি দিয়েছে জুরি বোর্ড। এবারই প্রথমবারের মতো জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতলেন শুভ।

শুভর সঙ্গে যৌথভাবে ২০১৭ সালের সেরা অভিনেতার পুরস্কার জিতেছেন শাকিব খান। হাসিবুর রেজা কল্লোল পরিচালিত ‘সত্তা’ ছবিতে অভিনয় করে চতুর্থবারের মতো এ স্বীকৃতি পাচ্ছেন তিনি।

২০১৮ সালে ‘পুত্র’ ছবির জন্য সেরা অভিনেতার পুরস্কার জিতেছেন নায়ক ফেরদৌস। এই নিয়ে পাঁচবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘরে তুললেন তিনি। ফেরদৌসের পাশাপাশি যৌথভাবে সেরা অভিনেতা হয়েছেন এ প্রজন্মের চিত্রনায়ক সাইমন সাদিক। মোস্তাফিজুর রহমান মানিক পরিচালিত ‘জান্নাত’ ছবিতে অভিনয় নৈপুণ্য দেখিয়ে জুরি বোর্ডের সদস্যদের মন জয় করেন তিনি। এবার প্রথমবারের মতো রাষ্ট্রীয় এ স্বীকৃতি পেলেন সাইমন।

দুই বছরে সেরা নায়িকা হয়েছেন ২০১৭ সালের ছবি ‘হালদা’র জন্য নুসরাত ইমরোজ তিশা ও ২০১৮ সালের ‘দেবী’ ছবিতে অভিনয়ের জন্য জয়া আহসান।

এছাড়া সব মিলিয়ে দুই বছরে ২৭টি ক্যাটাগরিতে মোট ৫৪টি পুরস্কার প্রদান করা হবে।

এলএ/এমএস

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]