বাবার জন্মদিন পালন করে সমালোচনার শিকার দেব

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদন ডেস্ক বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:৫৫ পিএম, ০৯ আগস্ট ২০২০

করোনাকাল চলছে। ভারতে এই প্রাণঘাতি ভাইরাল মন্দ প্রভাব ফেলেছে। দেশের এই ক্রান্তিকালে অনেক তারকাই নানাভাবে সাহায্যের হাত বাড়িয়েছেন। সে তালিকায় আছেন কলকাতার সিনেমার সুপারস্টার ও সাংসদ দেবও।

বিভিন্ন সময় বেশ কিছু উদ্যোগ নিতে দেখা গেছে তাকে অসহায় মানুষদের জন্য। করোনা মোকাবিলায় শুরু থেকেই নিজেকে নিবেদিত রেখেছেন এই অভিনেতা।

তবুও মন ভরাতে পারলেন না তিনি। ছোট পরিসরে বাবার জন্মদিন পালন করতে গিয়ে সোশাল মিডিয়ায় সমালোচনার শিকার হতে হলো তাকে। সমালোচনা আজ কোথায় করা উচিত এবং অনুচিত সেটাই যেন ভুলতে বসেছে সবাই।

বাবার জন্মদিন বলে কথা। যে মানুষটির সততা, নিষ্ঠা অনুসরণ করেই আজ এই জায়গায় পৌঁছেছেন তিনি, সেই মানুষটির জন্মদিনে বিশেষ প্ল্যান তো থাকবেই। নায়ক দেবের ক্ষেত্রেও তার অন্যথা হয়নি। কারণ, সাংসদ-অভিনেতার জীবনের হিরো তো তার বাবাই।

‘তুমিই আমার নায়ক, আমার অনুপ্রেরণা’, বাবা গুরুপদ অধিকারীর জন্মদিনে টলিউডের ‘চ্যাম্প’ এভাবেই শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন। সঙ্গে ছিলেন দেবের বোনও। সামনের টেবিলে রাখা কেক। বাবা আর বোনের সঙ্গে পোজ দিয়ে ছবি তুলেছেন সাংসদ-অভিনেতা।

দেবের বাবা গুরুপদ অধিকারী দক্ষিণ কলকাতার ‘টলি টেলস’ নামে অভিজাত এক রেস্তরাঁরও কর্ণধার। এর পাশাপাশি দেবের প্রযোজনা সংস্থা দেব এন্টারটেইনমেন্ট ভেঞ্চারসের গুরুত্বপূর্ণ পদেও রয়েছেন তিনি। সেই মানুষটির জন্মদিনেই কেকের আয়োজন করেছিলেন মাত্র। ব্যস! এতেই নেটবাসীরা হামলে পড়েছেন।

তারা কটাক্ষ করে লিখেছেন, ‘দাদা সেলিব্রেশনের টাকায় ভ্যাকসিন বানালে ভাল হত নাকি! সব শেষে মন্দির ওয়াহি বানায়েঙ্গের শুভেচ্ছা।’

এই মন্তব্যের পর আর আলাদা করে বলে দেওয়ার অপেক্ষা রাখে না যো কোন প্রসঙ্গে দেবকে কটাক্ষ করা হয়েছে।

আসলে দিন দুয়েক আগেই ঘাটালে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রাম মন্দির প্রসঙ্গে মুখ খুলেছিলেন দেব। সাংসদ অভিনেতা যদিও খুব বিচক্ষণতার সঙ্গেই উত্তর দিয়েছেন। তিনি অবশ্য রাজনীতির ময়দানে পা রেখে প্রথম দিন থেকে কটু মন্তব্যবাণ ছোঁড়ার পক্ষপাতী নন। তিনি সাংবাদিকদের উত্তরে বলেছিলেন, ‘যে কোনো বাচ্চাকে যদি প্রশ্ন করা হয়, এখন তোমার কী চাই? করোনার ভ্যাকসিন না রাম মন্দির, সেও বলে দেবে কোনটা প্রয়োজন।’

সাংসদের এই ডিপ্লোম্যাটিক উত্তরের প্রেক্ষিতেই হয়তো ওই নেটিজেন কটাক্ষ করেছেন।

এলএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]