তাজউদ্দীন আহমদের চরিত্রে সুযোগ পেয়ে আমি আনন্দিত : রিয়াজ

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:২১ পিএম, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১

মুম্বাইয়ে চলছে শ্যাম বেনেগাল পরিচালিত ‘বঙ্গবন্ধু’ চলচ্চিত্রের শুটিং। ছবিটিতে বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী ও স্বাধীনতা সংগ্রামের অন্যতম নেতা তাজউদ্দীন আহমদের চরিত্রে অভিনয় করছেন চিত্রনায়ক রিয়াজ। এরইমধ্যে তিনি মুম্বাইয়ে গিয়ে প্রথম লটের শুটিংয়ে অংশ নিয়েছেন।

নিজের অংশের শুটিং শেষ করে দেশে ফিরেছেন সম্প্রতি। জানালেন বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনী নিয়ে নির্মিতব্য বিগ বাগেটের এই সিনেমায় অভিনয়ের অভিজ্ঞতার কথা।

আজকাল কেউ কোনো নতুন কাজ করলেই সোশাল মিডিয়ায় তা ছবি বা স্ট্যাটাস দিয়ে জানাতে পছন্দ করেন। আর ‘বঙ্গবন্ধু’র মতো গুরুত্বপূর্ণ একটি সিনেমায় তাজউদ্দীন আহমদের মতো একজন কিংবদন্তির চরিত্রে অভিনয় করে এলেন কিছুই জানা গেল না। এই নিরবতা বা গোপনীয়তা কেন? প্রশ্ন শুনেই ফোনের ওপাশে মিষ্টি করে হাসলেন রিয়াজ। বললেন, ‘আমি বরাবরই তো এরকম। চুপচাপ। এ আর নতুন কি। একটা চমৎকার কাজ এসেছে। সেটা করেছি আনন্দ নিয়ে। কাজটি যেন ভালো হয় সেই চেষ্টা ছিলো।’

তাজউদ্দীন আহমদের চরিত্রে অভিনয় করার অভিজ্ঞতা কেমন, ‘প্রথমত ‘বঙ্গবন্ধু’ সিনেমাটিই আমাদের দেশের মানুষের জন্য একটি আনন্দের বিষয়। খুব গুরুত্বপূর্ণও। ভারত ও বাংলাদেশ যৌথভাবে ছবিটি তৈরি করছে আন্তর্জাতিক মানে। ছবিটি দেশে-বিদেশে দেখানো হবে নানা ভাষায়। এমন একটি চলচ্চিত্রের অংশ হওয়াটাই আনন্দের। আর সেখানে ‘বাংলার তাজ’খ্যাত কিংবদন্তি তাজউদ্দীন আহমদের চরিত্রে কাজ করার আনন্দটা তো আরও আলাদা, মর্যাদাবান।’

‘এটি একটি ঐতিহাসিক চরিত্র। যখন আমাকে বলা হলো যে এই চরিত্রের জন্য নির্বাচিত হয়েছি তখন থেকেই আমি প্রস্তুতি নিয়েছি। পড়াশোনা করতে হয়েছে। নানা রকম ম্যাটেরিয়াল যোগার করতে হয়েছে। নিজেকে গুছিয়েই মুম্বাই গিয়েছি। চমৎকার অভিজ্ঞতা হয়েছে কাজের’- যোগ করেন রিয়াজ।

তাজউদ্দীন আহমদের চরিত্রে প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত ছিলেন ফেরদৌস। তিনি কেন এ চরিত্রটিতে নেই এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে রিয়াজ বলেন, ‘এটা বলার রাইট আসলে আমার নেই। আমি এ ছবিতে অন্য একটি চরিত্রের জন্য তালিকায় ছিলাম। কিন্তু পরে আমাকে জানানো হলো যে তাজউদ্দীন সাহেবের চরিত্রটি করতে হবে। আমি প্রস্তুতি নিয়েছি এবং শুটিং করেছি। আবারও মুম্বাই যেতে হবে পরের লটের জন্য। এরপর বাংলাদেশেই শুটিং হবে। এর বেশি আমি কিছু বলতে পারবো না।’

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের ২৫ জানুয়ারি থেকে ভারতের মুম্বাইয়ে ছবির প্রথম লটের শুটিং শুরু হয়েছে। ধারাবাহিকভাবে সব কাজ শেষ করে চলতি বছরেই ‘বঙ্গবন্ধু’ সিনেমাটি বাংলাদেশ ও ভারতে মুক্তি দেয়া হবে।

এলএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]