ইয়ারফোন অর্ডার করে খালি বক্স পেলেন অভিনেতা!

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদন ডেস্ক বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫৫ এএম, ১৬ অক্টোবর ২০২১

ভারতের জনপ্রিয় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ‘ফ্লিপকার্ট’। তবে প্রায়ই পণ্য ডেলেভারি নিয়ে সমালোচনার মুখে পড়ছে এ প্রতিষ্ঠান। এবার ভারতীয় এক অভিনেতাকে খালি বক্স পাঠিয়ে সমালোচনার মুখে পড়েছে ফ্লিপকার্ট।

ফ্লিপকার্টের প্রতারণার শিকার অভিনেতা হলেন পারস কালনাওয়াত। তিন হিন্দি সিরিয়ালের জনপ্রিয় অভিনেতা। শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) টুইটারে এ নিয়ে পোস্ট দিয়ে ক্ষোভ জানিয়েছেন তিনি। একই সঙ্গে ভক্ত-অনুরাগীদের ফ্লিপকার্ট বয়কটের আহ্বান জানান।

পারস কালনাওয়াতের দাবি, তিনি একটি নামী ব্র্যান্ডের ইয়ারফোন অর্ডার করেছিলেন। কিন্তু তাকে যে বক্সটি পাঠানো হয়েছে, তাতে কিছুই নেই। অর্থাৎ খালি বক্স পেয়েছেন তিনি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে জানা গেছে, সম্প্রতি ফ্লিপকার্ট বিগ বিলিয়ন ডে-এর অফারে পারস কালনাওয়াত একটি নামী ব্র্যান্ডের ইয়ারফোন অর্ডার করেন। সেটি বাবদ তিনি ছয় হাজার ভারতীয় রুপি পেমেন্টেও করেছেন। নির্দিষ্ট সময়ে অর্ডারের ডেলিভারিও পান কালনাওয়াত। তবে বক্স খুলে তাতে কিছুই পাননি তিনি। অর্থাৎ ছয় হাজার টাকা বাবদ তাকে খালি বক্স পাঠিয়েছে ফ্লিপকার্ট।

ঘটনা জানিয়ে এ অভিনেতা টুইট করেছেন। সেখানে তিনি লেখেন, ‘ফ্লিপকার্ট অত্যন্ত খারাপ হয়ে উঠেছে। দ্রুত এ মাধ্যম থেকে কেনাকাটা বন্ধ করা উচিত।’

এদিকে, অভিনেতার টুইট ও সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশের পর সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিয়েছে ফ্লিপকার্ট কর্তৃপক্ষ। তবে খালি বক্স দেওয়ার বিষয়ে তারা কিছুই জানায়নি।

সম্প্রতি ফ্লিপকার্টে মোবাইল ফোন অর্ডার করে দুটি কাপড় কাচার সাবান পান একজন গ্রাহক। তার দাবি, তিনি একটি স্মার্টফোন অর্ডার করেন, যার মূল্য বাবদ ৫৩ হাজার টাকা পরিশোধও করেন। অর্ডারের ছয় মাস পর ডেলিভারি পান তিনি। তবে বক্স খুলে দেখতে পান তাতে দুটি ১২টা দামের সাবান।

এএএইচ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]