বন্যায় এ পর্যন্ত ৬৯৬৩ জন ডায়রিয়া আক্রান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:০২ পিএম, ০২ জুলাই ২০২২
বন্যায় এ পর্যন্ত ৯৫ জনের মৃত্যু হয়েছে/সাম্প্রতিক ছবি

দেশে বন্যায় ২৪ ঘণ্টায় কারও মৃত্যু হয়নি বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। ফলে মৃত্যুর সংখ্যা ৯৫ জনই রয়েছে। কবলিত এলাকায় বন্যাসৃষ্ট দুর্ঘটনা এবং বিভিন্ন রোগে তাদের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে সিলেট বিভাগে।

শনিবার (২ জুলাই) সারাদেশে বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

এত বলা হয়েছে, শুক্রবার (১ জুলাই) পর্যন্ত বন্যাজনিত বিভিন্ন রোগে ১০ হাজার ২০৯ জন আক্রান্ত থাকলেও শনিবার তা বেড়ে ১০ হাজার ৭৭৪ জনে দাঁড়িয়েছে।

বন্যার শুরু থেকে এ পর্যন্ত দেশে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬ হাজার ৯৬৩ জন। আর মৃত্যু হয়েছে ১ জনের। আরটিআইয়ে (চোখের রোগ) আক্রান্ত হয়েছেন ৪৩২ জন। তবে এতে কারও মৃত্যু হয়নি।

বন্যার প্রকোপের এই সময়ে বজ্রপাতে ১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। সাপে কেটেছে ১৪ জনকে। তাদের মধ্যে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। আর পানিতে ডুবে মৃত্যু হয়েছে ৬৮ জনের।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, গত ১৭ মে থেকে ২ জুলাই পর্যন্ত বন্যায় রংপুর বিভাগে ৫ জন, ময়মনসিংহ বিভাগে ৩৩ ও সিলেট বিভাগে ৫৬ জন ও ঢাকা বিভাগে ১ জনসহ মোট ৯৫ জনের মৃত্যু হয়েছে।

জেলাভিত্তিক মৃত্যুর সংখ্যায় শীর্ষে রয়েছে সুনামগঞ্জ। এ পর্যন্ত জেরায় ২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। সিলেট জেলায় মৃত্যু হয়েছে ১৮ জনের। হবিগঞ্জ ও মৌলভীবাজারে মৃত্যুবরণ করেছেন ৫ জন করে। নেত্রকোনায় ১১ জন ও জামালপুরে মৃত্যু হয়েছে ৯ জনের। ময়মনসিংহে ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়াও শেরপুরে ৭ জন, কুড়িগ্রাম ৪ জন ও লালমনিরহাটে ১ জন মারা গেছেন। টাঙ্গাইলে মৃত্যু হয়েছে ১ জনের।

এএএম/ইএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]