ভাল্লুক ছানার ভাইরাল ভিডিওর নেপথ্যে করুণ কাহিনী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৪৮ এএম, ১৪ নভেম্বর ২০১৮

এক ভাল্লুক ছানা এবং তার মায়ের পাহাড় বেয়ে ওপরের দিকে ওঠার এক ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সম্প্রতি। অনেকেই ভিডিওটি দেখে ‘একবার না পারিলে দেখ শতবার ধরনের মন্তব্য করেছেন। কিন্তু সেই ভিডিওর পেছনের কাহিনী বেশ হতাশাজনক।

রাশিয়ার পূর্বাঞ্চলে বরফাচ্ছাদিত এক খাড়া পাহাড় বেয়ে ওপরে উঠছিল একটি ভাল্লুক এবং সেটির ছোট্ট ছানা। কিন্তু ভাল্লুকটি সহজেই সেই পাহাড়ের ওপরে উঠে গেলেও বিপদে পড়ে ছানাটি। বারবার চেষ্টা করতে থাকে পাহাড় বেয়ে ওপরের দিকে ওঠার। কিন্তু কিছুটা ওঠার পরই সেটি পিছলে পরে যাচ্ছিল। একবার তো মায়ের একেবারে কাছাকাছি যাওয়ার পরও মায়ের অদ্ভুত আচরণে একেবারে অনেকটা নিচে নেমে যায় আবার।

আরও পড়ুন>> ভাল্লুক ছানার ভাইরাল এই ভিডিওটি কী শেখাল

মা ভাল্লুকের এই আচরণের ব্যাখ্যা খুঁজে পেয়েছেন প্রাণি বিশেষজ্ঞরা। ব্যাপারটা আসলে আতকে ওঠার মতোই। ভাল্লুক ছানার পাহাড় বেয়ে ওপরে ওঠার পুরো দৃশ্য একটি ড্রোনের মাধ্যমে ধারণ করা হচ্ছিল। যখনই ছানাটি চূড়ার কাছাকাছি পৌঁছাচ্ছিল, তখনই ড্রোন চালক ড্রোনটিকে ভাল্লুক ছানার কাছাকাছি নিচ্ছিল ভালো শট পাওয়ার আশায়। কিন্তু ভাল্লুক এবং ছানাটি ড্রোনটি দেখে আতঙ্কিত হচ্ছিল। ড্রোনটি কাছাকাছি পৌঁছালে ভাল্লুকটি সেটি সরাতে হুংকার দিচ্ছিল। মোটের ওপর সেটির কারণে দেহের নড়াচড়ায় বরফ সরে যাচ্ছিল। আর তাতে ছানাটির ওপরে ওঠার পথ বাধাগ্রস্ত হচ্ছিল।

প্রাণি বিশেষজ্ঞরা তাই এ ঘটনার জন্য দূষছেন ড্রোন চালককে। তাদের মতে এভাবে একটি প্রাণি এবং সেটির বাচ্চাকে বিরক্ত করা রীতিমতো আইনবিরোধী কর্মকাণ্ড। এতে তাদের ক্ষতি বৈ উপকার কিছু হয় না। তাই এভাবে প্রাণিদের বিরক্ত না করার অনুরোধ জানিয়েছেন তার। সূত্র: ডয়চে ভেলে

এসআর/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :