ব্রাজিল সীমান্ত বন্ধ করছে ভেনেজুয়েলা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:২৬ পিএম, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ল্যাটিন আমেরিকার দেশ ভেনেজুয়েলা পার্শ্ববর্তী ব্রাজিলের সঙ্গে সীমান্ত বন্ধ করে দিচ্ছে। সীমান্ত দিয়ে আন্তর্জাতিক সাহায্য আসা বন্ধ করতেই এমন নির্দেশ দিয়েছেন দেশটিতে ক্ষমতা হারানোর আশঙ্কায় পড়া প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরো। বিবিসির এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য জানানো হয়েছে।

দেশটির বামপন্থী প্রেসিডেন্ট মাদুরো এক টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘বিরোধী পক্ষ যাতে সীমান্ত দিয়ে ত্রাণ সামগ্রী দেশে ঢোকাতে না পারে সেজন্য তিনি কলম্বিয়ার সঙ্গে সীমান্ত বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্তের কথাও বিবেচনা করছেন।’ দেশে কোনো সঙ্কট নেই মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র লোক দেখানোর জন্য এসব ত্রাণ পাঠাচ্ছে।’

বৃহস্পতিবার রাতে প্রেসিডেন্টের ঘোষণা আসার আগেই ভেনেজুয়েলার প্রতিরক্ষামন্ত্রী ও অন্যান্য শীর্ষ সামরিক কমান্ডারদের মাধ্যমে এই খবর চাউড় হয়। প্রেসিডেন্ট মাদুরো পরবর্তী নির্দেশনা না আসা পর্যন্ত ব্রাজিলের সঙ্গে সীমান্ত ‘সম্পূর্ণভাবে এবং একেবারে’ বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর একটি উড়োজাহাজ গত শনিবার কলম্বিয়ার সীমান্তবর্তী শহর কুকুতায় পৌঁছায়। কিন্তু ভেনেজুয়েলার সেনাবাহিনী মার্কিন সেই ত্রাণ ঢুকতে দিচ্ছে না। এমন পরিস্থিতে ‘স্বঘোষিত’ প্রেসিডেন্ট ও দেশটির বিরোধী দলের নেতা হুয়ান গুয়াইদো সেই ত্রাণ দেশে আনতে এক দল স্বেচ্ছসেবী নিয়ে রাজধানী কারাকাস থেকে কলম্বিয়া সীমান্তের উদ্দেশে রওয়ানা হয়েছেন।

শুক্রবার সন্ধ্যায় ভেনেজুয়েলা সীমান্তের কলাম্বিয়া অংশে অর্থ সংগ্রহের উদ্দেশে একটি কনসার্টের আয়োজন করা হয়েছে। সেখানে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে বিরোধী নেতা হুয়ান গুয়াইদোর। ঠিক একই সময়ে ওই অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকে মাত্র তিনশ’ ফুট দূরে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে মাদুরোর সরকার।

গত মাসে ভেনেজুয়েলায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভ শুরু হলে দেশটির জাতীয় সংসদের স্পিকার ও বিরোধী দলের নেতা হুয়ান গুয়াইদো নিজেকে ‘অন্তবর্তীকালীন’ প্রেসিডেন্ট হিসেবে ঘোষণা দেন। যুক্তরাষ্ট্র, ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ ল্যাটিন আমেরিকার বেশিরভাগ দেশ মিলিয়ে মোট ৫০টিরও বেশি দেশ তাকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে।

এসএ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :