অনুমতি পেলেও পাকিস্তানের আকাশপথ ব্যবহার করেননি মোদি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৩৮ পিএম, ১৩ জুন ২০১৯

গত ফেব্রুয়ারিতে বালাকোট হামলার পর ভারতীয় বিমানের জন্য আকাশপথ বন্ধ করে দেয় পাকিস্তান। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির একটি বিদেশ সফরের জন্য পাকিস্তানের আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি চায় ভারত। পাকিস্তান অনুমতি দিলেও মোদি ভিন্ন পথ ব্যবহার করে বিদেশ সফরে গেছেন।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কিরগিস্তান সফরের জন্য পাকিস্তানের আকাশ পথ ব্যবহারের অনুমতি চাওয়া হয়েছিল। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে পাকিস্তানের কাছে অনুমতি চেয়ে চিঠি পাঠানো হয়। সংবাদ সংস্থা পিটিআইি এর আগে জানিয়েছিল, পাক সরকার মোদিকে আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি দেয়।

অনুমতি পাওয়া সত্ত্বেও পাকিস্তানের আকাশপথ ব্যবহার না করে মোদি ওমান, ইরান ও মধ্য এশিয়া হয়ে কিরগিস্তানের রাজধানী বিশকেকে গেছেন।১৩ ও ১৪ জুন বিশকেকে অনুষ্ঠিত হচ্ছে ‘সাংহাই কোঅপারেশন অর্গানাইজেশন’ বা এসসিও-এর ১৯ তম শীর্ষ সম্মেলন। সেখানে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে নরেন্দ্র মোদির প্রথমবার দেখা দেখা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

আরও পড়ুন>> মোদির জন্য আকাশপথ খুলে দিল পাকিস্তান

বালাকোটে অভিযানের পর থেকেই ভারতীয় বিমানের জন্য আকাশ পথ বন্ধ করে দিয়েছিল পাকিস্তান। ২৬ ফেব্রুয়ারি থেকেই সেই নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হয়। এর জের ধরে ভারতের বাণিজ্যিক বিমান পরিষেবা বিভিন্ন ভাবে সমস্যায় পড়েছে।

কিন্তু প্রধানমন্ত্রী মোদির জন্য পাকিস্তানের কাছে আবেদন জানানো হয়েছিল। চরম শত্রুভাবাপন্ন হলেও প্রতিবেশী ভারতের এই প্রস্তাব ফিরিয়ে দেয়নি পাকিস্তান। পাকিস্তানের এই পদক্ষেপের পেছনে বড় কূটনৈতিক সমীকরণ ছিল বলে ধারণা করা হচ্ছিল।

মোদির বিশকেক যাত্রার একদিন আগে বুধবার ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়, প্রধানমন্ত্রীর বিমান ওমান, ইরান ও মধ্য এশিয়ার অন্য দেশ হয়ে কিরগিস্তানের রাজধানী বিশকেকে গেছেন। সরকারিভাবে বলা হয়, বিশকেকে পৌঁছানোর দুই ‘রুট’ বা উপায় নিয়েই চিন্তা-ভাবনা চলছিল। এখন ঠিক হয়েছে ওমান, ইরান ও মধ্য এশিয়া হয়ে যাওয়া হবে।

এসএ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :