এনআরসি আতঙ্কে এবার পশ্চিমবঙ্গে ২ জনের আত্মহত্যা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:০৮ এএম, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকায় (এনআরসি) নাম না থাকায় ক্ষোভে, আতঙ্কে বেশ কয়েকজনের আত্মহত্যার খবর পাওয়া গেছে। এবার একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গেও। সেখানেও নাগরিক তালিকা হবে এমন আতঙ্কে দু'জন আত্মহত্যা করেছেন। যদিও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় বলেছেন, কোনও পরিস্থিতিতেই সেখানে এনআরসি হবে না।

তবে ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকারের নেতা, মন্ত্রীরা বার বারই হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন সেখানেও হবে নাগরিক তালিকা। রাজ্য বিজেপির পক্ষ থেকেও বারবার নাগরিক তালিকার পক্ষে সাফাই গাওয়া হচ্ছে। আর এতে করে পুরো রাজ্যজুড়েই আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

এমন আতঙ্কের কারণেই আত্মহত্যার খবর পাওয়া যাচ্ছে। উত্তর ২৪ পরগনার বসিরহাটের সোলাদানা গ্রামে এক যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পরিবারের দাবি, এনআরসি আতঙ্কেই আত্মহত্যা করেছেন ৩৫ বছর বয়সী কামাল হোসেন।

পরিবারের লোকজন বলছেন, এনআরসির খবর ছড়িয়ে পড়ার পর থেকেই এলাকার বাসিন্দারা আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন। ভোটার কার্ড, আধার কার্ড ও রেশন কার্ডে নামের বানান সংশোধন করার জন্য কামাল ছুটোছুটি করছিলেন। ১৯৭১ সালের আগে জমির দলিল পাচ্ছিলেন না তিনি। ফলে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছিলেন। অবশেষে দেশছাড়া হওয়ার ভয়ে আত্মহত্যার পথ বেঁছে নেন।

একই ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগণার ফলতার মামুদপুরে। বিজেপির নেতা-নেত্রীদের মুখে এনআরসির খবর শোনার পর থেকেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন কালাচাঁদ মিদ্যা। সপরিবারে রাষ্ট্রহীন হওয়ার ভয়ে আত্মহত্যা করে বসেন তিনি।

টিটিএন/পিআর