সামরিক সম্পর্ক বৃদ্ধির উপায় খুঁজছে কাতার-পাকিস্তান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:০৩ পিএম, ১৩ নভেম্বর ২০১৯

দ্বিপাক্ষিক সামরিক সম্পর্ক জোরদার করতে উপায় খুঁজছে কাতার এবং পাকিস্তান। মঙ্গলবার এ ব্যাপারে দুই দেশের শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তারা এক বৈঠকে মিলিত হয়ে আলোচনা করেছেন। উপসাগরীয় অঞ্চলে কাতারের সঙ্গে যখন সৌদি নেতৃত্বাধীন বেশ কয়েকটি দেশের দীর্ঘদিন ধরে টানাপড়েন চলছে, ঠিক তখনই এই আলোচনা অনুষ্ঠিত হলো।

কাতারের সরকারি সংবাদসংস্থা কিউএনএ এক প্রতিবেদনে বলছে, দোহায় কাতারের উপপ্রধানমন্ত্রী ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ বিন আব্দুল রহমান আল-থানির সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেছেন পাকিস্তানের নৌবাহিনীর প্রধান জাফর মাহমুদ আব্বাসি। বৈঠকে তারা দুই দেশের সামরিক সম্পর্কের উন্নতি ও জোরদার করার বিভিন্ন উপায় সম্পর্কে আলোচনা করেছেন।

কিউএনএ বলছে, এ সময় দুই দেশের এ দুই শীর্ষ কর্মকর্তা দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতা এবং পারস্পরিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট অন্যান্য বিষয় পর্যালোচনা করেন।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে কাতারের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে দেশটির নৌবাহিনীর প্রধান ঘানেম বিন শাহীন আল-ঘানেমের সঙ্গেও পাক নৌ-প্রধান স্বাক্ষাৎ করেছেন বলে জানানো হয়েছে। এ সময় তারা পারস্পরিক সামরিক সহযোগিতা বৃদ্ধির উপায় নিয়ে অত্যন্ত ফলপ্রসূ আলোচনা করেন।

সন্ত্রাসবাদে অর্থায়ন ও সহযোগিতার অভিযোগ এনে ২০১৭ সালের জুনে সৌদি আরবের নেতৃত্বে উপসাগরীয় অঞ্চলের কয়েকটি কাতারের বিরুদ্ধে অবরোধ আরোপ করে। তবে কাতার এই অভিযোগ বরাবরের মতো প্রত্যাখ্যান করে এলেও অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়নি।

সম্প্রতি কাতারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ বিন আব্দুল রহমান আল-থানি সৌদি জোটের অবরোধ কাতারের অর্থনীতিকে ধ্বংস করতে পারেনি বলে মন্তব্য করেন।

এসআইএস/পিআর