শর্তসাপেক্ষে জামিন পেলেন কংগ্রেস নেতা চিদাম্বরম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:২২ পিএম, ০৪ ডিসেম্বর ২০১৯

আইএনএক্স মিডিয়ায় বিদেশি বিনিয়োগে দুর্নীতি মামলায় তিন মাসেরও বেশি সময় ধরে কারাবন্দি থাকার পর ভারতের সাবেক কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী ও কংগ্রেস নেতা পি চিদাম্বরম জামিন পেয়েছে। আজ বুধবার দেশটির সুপ্রিম কোর্ট কংগ্রেসের এই বর্ষীয়ান নেতাকে শর্তসাপেক্ষে জামিনের নির্দেশ দেন।

সুপ্রিম কোর্টের দেয়া শর্তগুলো হলো প্রথমত, আইএনএক্স মামলা নিয়ে জনসমক্ষে কোনও মন্তব্য করতে পারবেন না চিদাম্বরম। ওই মামলার সাক্ষীদের সঙ্গে যেমন যোগাযোগ করতে পারবেন না তেমনই তিনি কোনও সাক্ষাৎকারও দিতে পারবেন না বলে নির্দেশ দিয়েছে শীর্ষ আদালত।

দ্বিতীয় শর্ত হলো এই মুহূর্তে সাবেক এই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দেশের বাইরে যেতে পারবেন না। এমনকি, তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করা হলে সংশ্লিষ্ট তদন্তকারী সংস্থার কাছে উপস্থিত হতে হবে বলেও শর্ত দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। তার জামিনের খবরে টুইট করেছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী।

রাহুল গান্ধী লেখেন, ‘চিদাম্বরমকে ১০৬ দিন কারারুদ্ধ করে রাখা প্রতিহিংসাপরায়ণতা। আমি খুশি যে সুপ্রিম কোর্ট তাকে জামিন দিয়েছে। আমি নিশ্চিত তিনি সুষ্ঠু বিচারব্যবস্থায় তিনি নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করবেন।’ তিন মাস আগে চিদাম্বরম গ্রেফতার হলে কংগ্রেসকে আক্রমণ করেছিলে ক্ষমতাসীন বিজেপি।

আজ চিদাম্বরমের জামিনের নির্দেশ নিয়েও বিজেপি নেতা সম্বিত পাত্র এক টুইট বার্তায় লেখেন, ‘তাহলে শেষপর্যন্ত চিদাম্বরমও কংগ্রেসের ওওবিসি-তে (আউট অন বেল ক্লাব) যোগ দিলেন। সেই ক্লাবের কয়েকজন সদস্য, সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধী, প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর স্বামী রবার্ট ভদ্র, মোতিলাল ভোরা, ভুপিন্দর হুদা এব শশী থারুর।’

আইএনএক্স মিডিয়া দুর্নীতি মামলায় প্রথমে চিদামম্বরমকে গ্রেফতার করে দেশটির কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা সিবিআই। তবে সেই মামলায় তিনি ২২ অক্টোবর জামিন পান। কিন্তু এরমধ্যেই গত ১৬ অক্টোবর আর্থিক দুর্নীতি মামলায় চিদাম্বরমকে গ্রেফতার করে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট।

এসএ/পিআর