অভিশংসনের প্রস্তাব বেআইনি : ট্রাম্পের আইনজীবী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:৫৭ পিএম, ১৯ জানুয়ারি ২০২০

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসনের যেসব অভিযোগ আনা হয়েছে সেগুলোকে বেআইনি বলে উল্লেখ করেছেন তার আইনজীবীরা। প্রথমবারের মতো ট্রাম্পের আইনজীবী দল এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে জবাব দিয়েছে। এসব অভিযোগকে যুক্তরাষ্ট্রের গণতন্ত্রের ওপর 'বিপজ্জনক আক্রমণ' বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

এক বিবৃতিতে ট্রাম্পের আইনজীবী দল জানিয়েছে, অভিশংসনের যেসব অভিযোগ আনা হয়েছে সেগুলো উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে কোন অপরাধ প্রমাণ হয়নি এবং ২০২০ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে হস্তক্ষেপ করার এটি একটি নির্লজ্জ চেষ্টা।

আগামী সপ্তাহেই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসনের বিচার শুরু হবে। তার আগেই ডেমোক্রেট সদস্যরা আনুষ্ঠানিকভাবে অভিশংসনের পক্ষে প্রয়োজনী নথি জমা দিয়েছেন। ফলে ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের তৃতীয় প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিশংসনের মুখে পড়তে যাচ্ছেন। তবে মার্কিন ইতিহাসে এখনও পর্যন্ত কোন প্রেসিডেন্টকে অভিশংসনের কারণে প্রেসিডেন্টের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়নি।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার এবং কংগ্রেসের কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে। তবে এ ধরনের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ট্রাম্প। তিনি এসব অভিযোগকে ধাপ্পাবাজি বলে উল্লেখ করেছেন।

গত মাসে ডেমোক্রেট নিয়ন্ত্রিত মার্কিন কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদে অভিশংসিত হন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।
তবে ট্রাম্পকে হোয়াইট হাউস ছাড়তে হবে কিনা সে বিষয়ে এখন চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত সিনেটে।

ইতোমধ্যেই ট্রাম্পের আইনজীবীরা ছয় পৃষ্ঠার বিশাল একটি সারসংক্ষেপ প্রস্তুত করেছেন। আইনজীবীদের ওই দলটি জানিয়েছে, অভিশংসন প্রস্তাবকে সাংবিধানিক এবং পদ্ধতিগত দুইভাবেই মোকাবিলা করা হবে।

তাদের মতে, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ভুল কিছু করেননি এবং তাকে যথাযথ মূল্যায়ন করা হয়নি। অপরদিকে শনিবার ডেমোক্রেট সদস্যরা অভিশংসনের যে কাগজপত্র জমা দিয়েছেন তাতে ট্রাম্পকে কেন অভিশংসিত করা উচিত সে সম্পর্কে বলা হয়েছে যে, বিশ্বস্ততার সাথে আইন কার্যকর এবং নিজের দায়িত্ব পালনে প্রেসিডেন্ট যে শপথ নিয়েছেন তা তিনি ভঙ্গ করেছেন এবং তিনি জনগণের বিশ্বাস ভেঙেছেন।

টিটিএন/পিআর