যুক্তরাষ্ট্রের হুমকির মধ্যেই ভেনেজুয়েলা পৌঁছাল ইরানি ট্যাংকার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০১:৫১ পিএম, ২৫ মে ২০২০

যুক্তরাষ্ট্রের নানা হুমকি-ধামকির মধ্যেই ভেনেজুয়েলা পৌঁছেছে ইরানের তেলবাহী প্রথম ট্যাংকারটি। জাহাজের গতিবিধি নির্ণায়ক ওয়েবসাইট ট্যাংকারট্রাকারের তথ্যমতে, শনিবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ভেনেজুয়েলার বিশেষ অর্থনৈতিক জোনে (ইইজেড) প্রবেশ করেছে ইরানি ট্যাংকার ‘ফরচুন’।

এছাড়া, ভেনেজুয়েলায় অবস্থিত ইরান দূতাবাসের পক্ষ থেকেও টুইটারে বলা হয়েছে, প্রথম ইরানি ট্যাংকারটি ভেনেজুয়েলা উপকূলে পৌঁছেছে। জাহাজটিকে নিরাপত্তা দেয়ার জন্য ভেনেজুয়েলার বলিভারিয়ান আর্মড ফোর্সকে ধন্যবাদ জানিয়েছে ইরানি কর্তৃপক্ষ।

ইরানের বাকি চারটি ট্যাংকার- ফরেস্ট, পেতুনিয়া, ফ্যাক্সন ও ক্ল্যাভেলও শিগগিরই ভেনেজুয়েলার তেল সংকট কাটাতে শিগগিরই সেখানে পৌঁছাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

ভেনেজুয়েলা-ইরানের মধ্যে এই তেল বাণিজ্য নিয়ে সাম্প্রতিক সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে তাদের সম্পর্কের বেশ অবনতি হয়েছে। দু’দেশের ওপরই অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা রয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের। এরপরও বাণিজ্য চালিয়ে গেলে এর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি দিয়েছে ট্রাম্প প্রশাসন।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ইরান বিষয়ক প্রতিনিধি ব্রায়ান হুক বলেছেন, ‘ইরানের শাসকরা কীভাবে ইরানি জনগণের সম্পদ লুটে নিচ্ছে ও ভেনেজুয়েলায় অপচয় করছে, এটাই তার উদাহরণ হতে পারে।’

কিছুদিন আগেই ক্যারিবিয়ান অঞ্চলে নৌসেনা বাড়িয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। যদিও তাদের দাবি, মাদকবিরোধী অভিযানের জন্যই এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। তবে ইরানকে চাপে ফেলতেই মার্কিন প্রশাসন ওই অঞ্চলে নৌ-টহল জোরদার করেছে বলে বিশ্বাস বিশ্লেষকদের।

এদিকে, ভেনেজুয়েলায় পাঠানো তেলবাহী ট্যাংকার আটকালে এর জন্য যুক্তরাষ্ট্রকে ভয়াবহ পরিণতি ভোগ করতে হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে ইরান।

গত সপ্তাহে দেশটির রাজকীয় বিপ্লবী বাহিনী আইআরজিসি-ঘনিষ্ঠ বার্তা সংস্থা নুর বলেছে, ‘যুক্তরাষ্ট্র যদি জলদস্যুদের মতো আন্তর্জাতিক জলসীমায় নিরাপত্তাহীনতা তৈরি করতে চায় তবে তারা অনেক বড় ঝুঁকি নেবে। আর সেটি অবশ্যই প্রতিক্রিয়াবিহীন হবে না।’

সূত্র: আল জাজিরা

কেএএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]