শিশুদের বিজ্ঞাপন দেখানো বন্ধে টেক জায়ান্টগুলোকে বিশিষ্টজনদের চিঠি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৩৩ পিএম, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০

অনূর্ধ্ব ১৮ বছর বয়সীদের জন্য বিজ্ঞাপন প্রদর্শন বন্ধ করতে টেক জায়ান্টগুলোকে খোলা চিঠি দিয়েছেন একদল এমপি, শিক্ষাবিদ এবং শিশু অধিকার আইনজীবী। চিঠিতে তারা লিখেছেন, আচরণমূলক বিজ্ঞাপন কেবল গোপনীয়তাই ক্ষুন্ন করে না বরং ‘সংবেদনশীল’ তরুণদেরকে অন্যায্য বিপণনের চাপে ফেলে দেয়।

বিবিসি প্রতিবেদন অনুযায়ী চিঠিতে গুগল, অ্যামাজন, অ্যাপল, ফেসবুক এবং মাইক্রোসফটের মতো জায়ান্টগুলোর প্রতি তারা এ আহ্বান জানান। অপরদিকে যুক্তরাজ্যে ১৩ বছরের কম বয়সী ৫০ লাখ শিশুর তথ্য অবৈধভাবে হাতিয়ে নিয়ে তা ব্যবহার করার অভিযোগ উঠেছে গুগলের মালিকানাধীন ইউটিউবের বিরুদ্ধে।

ইউরোপের তথ্য সুরক্ষা আইনে তরুণদের তথ্য হাতিয়ে তা ব্যবহার করার ওপর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

বিশিষ্টজনদের ওই চিঠিতে লেখা হয়েছে, ‘প্রকাশিত তথ্যে দেখা যাচ্ছে এই মুহূর্তে বিজ্ঞাপনী-প্রযুক্তি সংস্থাগুলোর কাছে শিশুদের ৭৩ মিলিয়ন তথ্য রয়েছে, যাদের বয়স ১৩ বছরের কম। এটা সংশ্লিষ্ট আইনের লঙ্ঘন এবং অবজ্ঞা। শিশুদের ওপর মারাত্মকভাবে নজরদারি চালানো হচ্ছে এটা তারই প্রমাণ হাজির করছে।’

১২ বছরের ‘কিশোর-কিশোরীদের’ লক্ষ্য করে ব্যক্তিগতভাবে বিজ্ঞাপন প্রদর্শনের কোনো যৌক্তিকতা নেই। ইন্টারনেটে সবচেয়ে শক্তিশালী কোম্পানি হিসেবে আপনারা ব্যবহারকারীর সুরক্ষা দিতে দায়বদ্ধ- বলছেন তারা।

চিঠিতে স্বাক্ষরকারী ২৩ জনের মধ্যে বিট্রিশ এমপি ক্যারোলিন লুকাস এবং ক্লিনিক্যাল মনোরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. এলি হ্যানসনও রয়েছে। এর আয়োজন করেছে গ্লোবাল অ্যাকশন প্ল্যান— যারা দাবি তুলছেন অনলাইন বিজ্ঞাপন একজন গ্রাহকের স্বাধীনতাকে ক্ষুন্ন করে তাদেরকে অপ্রয়োজনীয় চাপের মধ্যে ফেলে দেয়।

এসএ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]