বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানছে ফিলিপাইনে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:২৭ পিএম, ৩১ অক্টোবর ২০২০

ফিলিপাইনের দক্ষিণাঞ্চলের দিকে ধেয়ে যাচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী পাঁচ ক্যাটাগরির এক ঘূর্ণিঝড়। ঘণ্টায় ২০০ কিলোমিটারের বেশি গতি নিয়ে এ ঝড় রোববার দেশটির লুজন দ্বীপে আঘাত হানতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

দেশটির আবহাওয়া ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তারা বলছেন, চলতি বছর বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় গনি ২১৫ থেকে ২৬৫ কিলোমিটার গতিবেগ নিয়ে রোববার ব্যাপক তাণ্ডব চালাতে পারে লুজনে। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে প্রবল বর্ষণে ভূমিধসের শঙ্কাও প্রকাশ করেছেন কর্মকর্তারা।

এর আগে ফিলিপাইনে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় হাইয়ান তাণ্ডব আঘাত হানে। এতে দেশটিতে ৬ হাজার ৩০০ জনের বেশি মানুষের প্রাণহানি ঘটে।

ফিলিপিনো প্রেসিডেন্টের শীর্ষ সহযোগী ও পার্লামেন্টের সিনেটর ক্রিস্টোফার গো এক অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আমরা করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে কঠিন এক সময় পার করছি। এর মাঝেই আরেক দুর্যোগ হাজির হয়েছে। লোকজনকে সরিয়ে নেয়ার সময় ভাইরাসের বিস্তার যাতে না ঘটে সেটি স্থানীয় কর্মকর্তাদের নিশ্চিত করতে হবে।

দেশটির জাতীয় দুর্যোগ সংস্থার নির্বাহী পরিচালক রিকার্ডো জালাদ বলেন, কর্মকর্তারা পূর্ব পদক্ষেপ হিসেবে আলবে প্রদেশের ৭ লাখ ৯৪ হাজারের বেশি মানুষ সরিয়ে নেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, রাজধানী ম্যানিলা ও পার্শ্ববর্তী বুলাকান প্রদেশ থেকে এক হাজারের বেশি করোনা রোগীকে হোটেল এবং হাসপাতালে সরিয়ে নেয়া হতে পারে।

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে করোনাভাইরাস সংক্রমণ এবং মৃত্যুতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্থানে রয়েছে ফিলিপাইন। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এই ভাইরাসে ৩ লাখ ৮০ হাজারের বেশি আক্রান্ত এবং ৭ হাজার ২২১ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

গত সপ্তাহে ম্যানিলার দক্ষিণাঞ্চলে ঘূর্ণিঝড় মোলাভের আঘাতে অন্তত ২২ জনের প্রাণহানি ঘটে। একই পথে দেশটির দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় গনি।

সূত্র : রয়টার্স।

এসআইএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]