ফখরিজাদেহ হত্যাকারীর চূড়ান্ত শাস্তি সবার আগে : খামেনি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:৪৫ পিএম, ২৯ নভেম্বর ২০২০

ইরানের অন্যতম শীর্ষ পরমাণু বিজ্ঞানী মহসেন ফখরিজাদেহর হত্যাকারী এবং এর নির্দেশদাতার সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করার ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির শীর্ষনেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি।

শনিবার এক বিবৃতিতে ইরানি নেতা বলেছেন, ফখরিজাদেহ দেশটির খ্যাতনামা পরমাণু এবং প্রতিরক্ষা বিজ্ঞানী ছিলেন।

রুহানি বলেন, ইরানের তাৎক্ষণিক অগ্রাধিকার হবে ফখরিজাদেহকে হত্যাকারী এবং যারা এই নির্দেশ দিয়েছিল তাদের চূড়ান্ত সাজা দেয়া।

Iran-2.jpg

এদিকে, ইরানের করোনা টাস্কফোর্সের এক বৈঠকে দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, ফখরিজাদেহ হত্যাকাণ্ডে ইসরায়েলই দায়ী। আর এ ঘটনায় তাদের পারমাণবিক কর্মসূচি থেমে যাবে না।

তবে মহসেন ফখরিজাদেহ হত্যাকাণ্ডের প্রতিশোধমূলক কার্যক্রম শুরুতে কিছুদিন দেরি হতে পারে ইঙ্গিত দিয়ে রুহানি বলেন, আমরা ঠিক সময়েই শহীদ ফখরিজাদেহ হত্যাকাণ্ডের শোধ নেব।

পরে জাতিসংঘের কাছে পাঠানো এক চিঠিতে ইরান দাবি করেছে, তাদের শীর্ষ বিজ্ঞানীকে হত্যায় ইসরায়েল জড়িত থাকার জোর সম্ভাবনা রয়েছে। নিজেদের লোকজন রক্ষায় প্রয়োজনীয় সবধরনের ব্যবস্থা নেয়ার অধিকার রয়েছে বলেও ওই চিঠিতে উল্লেখ করেছে ইরান।

jagonews24

গত শুক্রবার তেহরান থেকে ৭০ কিলোমিটার পূর্বে আবসার্দ নামে একটি শহরে হামলার শিকার হন মহসেন ফখরিজাদেহ। এসময় তার গাড়িতে প্রথমে বোমা হামলা, এরপর মেশিনগান দিয়ে গুলি করা হয়।

হামলায় মহসেনের দেহরক্ষী এবং পরিবারের সদস্যরাও গুরুতর আহত হন।

ইরানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, নিরাপত্তা দল ও সন্ত্রাসীদের মধ্যে সংঘর্ষের সময় মহসেন ফখরিজাদেহ গুরুতর আহত হন এবং তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। দুর্ভাগ্যবশত মেডিক্যাল টিম তাকে বাঁচাতে পারেনি।

প্রখ্যাত এ ইরানি বিজ্ঞানীকে হত্যার দায় এখনও কেউ স্বীকার করেনি। তবে এ হত্যাকাণ্ডের জন্য ইসরায়েলকে দায়ী করেছে ইরান।

সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান, আল জাজিরা

কেএএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]