ক্ষমা চাইলেন বাইডেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৫৬ পিএম, ২৩ জানুয়ারি ২০২১

যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন সদ্য নিযুক্ত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তার অভিষেক অনুষ্ঠানে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসিতে আসা ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের অনেকেই ক্যাপিটলের কার পার্কে বিশ্রাম নিতে বাধ্য হন। সম্প্রতি এমন কিছু ছবি বিভিন্ন মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তার দায়িত্বের থাকা ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন বাইডেন।

গত ৬ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্ট ভবনে হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে বাইডেনের শপথ অনুষ্ঠানে বাড়তি নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছিল। বাইডেনের অভিষেকের দিনে ২৫ হাজারের বেশি ন্যাশনাল গার্ডের সদস্য নিরাপত্তার কাজে মোতায়েন ছিলেন।

গত বৃহস্পতিবার অনলাইনে ছড়িয়ে পড়া বেশ কিছু ছবিতে দেখা গেছে ন্যাশনাল গার্ডের কয়েকশ সদস্য একটি গাড়ি রাখার গ্যারেজে শুয়ে বিশ্রাম নিচ্ছেন। এ ঘটনায় অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। বেশ কয়েকটি অঙ্গরাজ্যের গভর্নর নিজ নিজ সেনাদের ডেকে পাঠিয়েছেন।

প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন শুক্রবার ন্যাশনাল গার্ড ব্যুরোর প্রধানকে ডেকে ক্ষমা চেয়েছেন এবং এ বিষয়ে তিনি কী করতে পারেন তা জানতে চেয়েছেন। অপরদিকে ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের ব্যক্তিগতভাবে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। তিনি তাদের উপহার হিসেবে চকলেট, বিস্কুট ইত্যাদি দিয়েছেন বলেও জানা গেছে। তিনি বলেন, ‘আমাকে এবং আমার পরিবারকে আপনারা সুরক্ষিত রেখেছেন। আমি আজ এখানে শুধুমাত্র আপনাদের ধন্যবাদ দিতে এসেছি।’

এদিকে এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, বাইডেনের ওই শপথে অংশ নেয়া ন্যাশনাল গার্ডের দেড়শ' থেকে ২শ সদস্যের দেহে করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ন্যাশনাল গার্ডে করোনায় আক্রান্ত সদস্যের সংখ্যা বাড়তে পারে। গত কয়েকদিনে রাজধানী ওয়াশিংটনে ২৫ হাজারের বেশি নিরাপত্তা সদস্য মোতায়েন ছিল।

যুক্তরাষ্ট্রে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে আক্রান্ত ও মৃত্যু লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছেই। বৃহস্পতিবার দেশটিতে দ্বিতীয় দিনের মতো করোনায় আক্রান্ত হয়ে দৈনিক চার হাজারের বেশি মৃত্যু হয়েছে। ওয়ার্ল্ডোমিটারের পরিসংখ্যান বলছে, যুক্তরাষ্ট্রে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ২ কোটি ৫৩ লাখ ৯০ হাজার ৪২। এর মধ্যে মারা গেছে ৪ লাখ ২৪ হাজার ১৭৭ জন।

দেশটিতে ইতোমধ্যেই করোনা থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছে ১ কোটি ৫২ লাখ ২২ হাজার ৭১৯ জন। বর্তমানে করোনার অ্যাক্টিভ কেসের সংখ্যা ৯৭ লাখ ৪৩ হাজার ১৪৬। এর মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছে ২৭ হাজার ৩২২ জন।

টিটিএন/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]