ই-বাইকে চড়ে জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদ মমতার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:০৪ পিএম, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১

ভারতে পেট্রল, ডিজেল ও গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে অভিনব কর্মসূচি পালন করছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ইলেকট্রিক বাইকে করে বৃহস্পতিবার তিনি পশ্চিমবঙ্গের রাজ্য সচিবালয় ও প্রধান প্রশাসনিক দফতর ভবন নবান্নে যান। সেখানে পৌঁছে জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির জন্য কেন্দ্রের বিজেপি সরকার ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে দায়ী করেন তিনি।

আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) হাজরা মোড় থেকে স্থানীয় সময় বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ফিরহাদ হাকিমের ইলেকট্রিক বাইকের পেছনে বসে যাত্রা শুরু করেন মমতা। এ সময় তার গলায় ঝোলানো ছিল জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদ সংক্রান্ত পোস্টার। দুপুর ১২টার নাগাদ নবান্নে পৌঁছান তারা। সফরের সঙ্গে অন্য বাইকে মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তারক্ষীরা ছিলেন।

jagonews24

নবান্নের বাইরে সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘ভোটের সময় এলেই বলে বেড়ান গ্যাস দেব। ওটা সত্যি সত্যি গ্যাস। মানে গ্যাস বেলুনের মতো।!কিন্তু সেই রান্নার গ্যাসের দাম ৮০০ টাকা ছাড়িয়ে গেছে এটা প্রতারণা ছাড়া আর কিছুই নয়। আমজনতার নাগালের বাইরে চলে যাচ্ছে। সাধারণ মানুষ কোথায় যাবে?’

গতকাল বুধবার গুজরাটের মোতেরা স্টেডিয়ামের নাম পাল্টে রাখা হয়েছে ‘নরেন্দ্র মোদি স্টে়ডিয়াম’। এ নিয়ে মমতা বলেন, ‘স্টেডিয়ামের নামও পাল্টে দিয়েছে। কোনো দিন হয়তো দেশের নামটাও পাল্টে দেবেন।’ এ প্রসঙ্গে বিভিন্ন রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা বেসরকারিকরণের নীতির তীব্র সমালোচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী।

jagonews24

দেশটিতে পেট্রল ও ডিজেলের দাম প্রায় প্রতিদিন বাড়ছে। তার সঙ্গে এ মাসেই তিনবার বেড়েছে রান্নার গ্যাসের দাম। অথচ গ্যাসে ভর্তুকি বাড়েনি। এ নিয়ে বরাবরই সরব তৃণমূল নেত্রী মমতা। পেট্রল-ডিজেল ও গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে শুক্রবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) থেকে আরও জোরালো প্রতিবাদে রাস্তায় নামবেন তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকরা।

এমএসএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]