লিফটে ওঠাই কাল হলো ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৪০ এএম, ০৯ মার্চ ২০২১

কলকাতার স্ট্র্যান্ড রোডে রেলের নিউ কয়লাঘাট বিল্ডিংয়ে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় মোট ৯ জন নিহত হয়েছেন। সোমবার (৮ মার্চ) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

নিহতদের মধ্যে ৪ জন দমকল কর্মী। বাকিদের মধ্যে পাশাপাশি কলকাতা পুলিশের এক অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব-ইন্সপেক্টর (এএসআই), এক আরপিএফ কর্মকর্তা ও লিফটম্যান রয়েছেন বলে জানা গেছে।

সোমবার রাত ১১টায় দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু বলেন, ১৩ তলা থেকে বের হতে গিয়ে ৪ জন দমকলকর্মী, হেয়ার স্ট্রিট থানার এক এএসআই এবং একজন আরপিএফ কর্মকর্তা মারা গেছেন। বাকিদের এখনও শনাক্ত করা যায়নি।

১৩ তলায় পূর্ব রেলের দফতরে আগুন লাগার পর নিউ কয়লাঘাট বিল্ডিংয়ের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়নি। এ অবস্থায় ওই কর্মীরা লিফটে করে আগুনের উৎস খুঁজতে উপরে উঠছিলেন। ১২ তলায় পৌঁছানোর পরই আগুনের ঝলকানি ও ধোঁয়ায় গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন তারা। রাত ১১টা ২০ মিনিটের দিকে ঘটনাস্থলে আসেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

jagonews24

অগ্নিকাণ্ডের মৃত্যুবরণকারী প্রত্যেকের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ এবং নিহতদের প্রত্যেক পরিবারের একজনকে সরকারি চাকরি দেয়া হবে বলেও ঘোষণা দিয়েছেন মমতা।

দমকলের একটি সূত্র জানায়, সন্ধ্যা সোয়া ৬টা নাগাদ ১৩ তলায় আগুন লাগার ফলে প্রথম থেকেই তা নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হচ্ছিল। হাইড্রলিক ল্যাডার বা যন্ত্রচালিত মই এনে সামাল দিতেও হিমশিম খাচ্ছিলেন দমকল কর্মীরা। এই পরিস্থিতিতে বিদ্যুৎ সংযোগ চালু রেখে লিফট ব্যবহার করে আগুনের উৎস খুঁজতে গিয়েছিলেন তারা। প্রায় ৫ ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

এমএসএইচ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]