করোনায় মৃত বাবার চিতায় ঝাঁপিয়ে পড়লেন মেয়ে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:২২ পিএম, ০৫ মে ২০২১ | আপডেট: ০৮:৩১ পিএম, ০৫ মে ২০২১

করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বাবা। এই মৃত্যু মেনে নিতে পারেননি মেয়ে। তাই বাবার দাহকার্য হওয়ার সময় জ্বলন্ত চিতার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়েন। প্রাণে বেঁচে গেলেও পুড়ে যায় তার শরীর।

মঙ্গলবার (৪ মে) ভারতের রাজস্থানের বারমেরে এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে।

সংবাদ সংস্থা পিটিআইয়ের প্রতিবেদনে বলা হয়, করোনা আক্রান্ত হয়ে ৭৩ বছরের বৃদ্ধ দামোদরদাস সারদার মারা যান। তার দেহ চিতায় তোলার সময় কাছে দাঁড়িয়ে ছিলেন তিন মেয়ে। যখন দামোদরদাস সারদারের দেহ চিতায় পুড়ছিল তখন হঠাৎ তার ছোট মেয়ে ৩৪ বছরের চন্দ্রা সারদা চিতার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়েন।

সঙ্গে সঙ্গে চন্দ্রাকে চিতা থেকে টেনে বের করা হয়। এরপর তাকে যোধপুরের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার শরীরের ৭০ শতাংশ পুড়ে গেছে।

কোতোয়ালি থানার অফিসার প্রেম প্রকাশ বলেন, মেয়েটি এভাবে ঝাঁপিয়ে পড়বে তা আগে বোঝা যায়নি। তবে সঙ্গে সঙ্গে তাকে বের করে নেয়ায় তিনি প্রাণে বেঁচে যান।

জেডএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]