ন্যাটোর সঙ্গে কূটনৈতিক মিশন স্থগিত করছে রাশিয়া

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৩৩ এএম, ১৯ অক্টোবর ২০২১

সম্প্রতি গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে পশ্চিমা দেশগুলোর সামরিক জোট ন্যাটো তাদের মিশন থেকে আট রাশিয়ান কূটনীতিককে বহিষ্কার করে। এ ঘটনার পাল্টা জবাবে এবার ন্যাটোতে থাকা নিজেদের স্থায়ী মিশন স্থগিত করছে রাশিয়া। স্থানীয় সময় সোমবার (১৮ অক্টোবর) দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ এ তথ্য জানিয়েছেন। খবর বিবিসির।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ বলেন, ন্যাটোতে রাশিয়ার স্থায়ী মিশন স্থগিতাদেশ নভেম্বরের প্রথম দিকে কার্যকর করা হবে। তিনি আরও বলেন, ন্যাটোর পদক্ষেপের (রুশ কর্মকর্তা বহিষ্কার) অংশ হিসেবে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী অভিযোগ করেন, ন্যাটো কোনো সমতাভিত্তিক সংলাপে আগ্রহী নয়। সে কারণে ভবিষ্যতে কিছু পরিবর্তন ঘটবে এমনটা আশা করা যায় না। ফলে মিশন চালিয়ে যাওয়ার তেমন প্রয়োজনীয়তা দেখছি না।

রাশিয়ার এ ঘোষণার পর ন্যাটো জানিয়েছে, তারা বিষয়টি নজরে রেখেছে।

jagonews24

ন্যাটোর রুশ কর্মকর্তাদের বহিষ্কারের পদক্ষেপের কারণে ব্রাসেলসে ২০ জনের পরিবর্তে ১০ জন রাশিয়ান কূটনীতিক কাজ করতে পারবে বলে জানা গেছে। চলতি মাসের শেষে এ নিয়ম কার্যকর হওয়ার কথা রয়েছে।

স্কাই নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, হত্যাকাণ্ড ও গুপ্তচরবৃত্তিসহ সন্দেহভাজন কর্মকাণ্ডের জন্য রাশিয়ান কর্মকর্তাদের বহিষ্কার করে ন্যাটো। জোটের মহাসচিব জেন্স স্টলটেনবার্গ এ ঘটনার পর বলেন, এই সিদ্ধান্ত কোনো বিশেষ ঘটনার সঙ্গে সম্পর্কিত নয়। আমরা নিয়মিত রাশিয়ার বিদ্বেষমূলক কর্মকাণ্ড বৃদ্ধি পেতে দেখছি। তাই আমাদের সতর্ক থাকতে হবে।

২০১৪ সালে মস্কো ইউক্রেনের ক্রিমিয়া উপদ্বীপ দখল করার পর থেকেই ন্যাটো এবং রাশিয়ার মধ্যে সম্পর্কের টানাপোড়েন শুরু হয়। এরপর থেকে ক্রমেই সম্পর্কের অবনতি ঘটতে থাকে।

এসএনআর/টিটিএন/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]