থাইল্যান্ডে ওমিক্রনে প্রথম মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৭:২৫ পিএম, ১৬ জানুয়ারি ২০২২
ছবি: সংগৃহীত

থাইল্যান্ডে করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রনে আক্রান্ত হয়ে প্রথম বারের মতো একজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। অতি সংক্রামক এই ভ্যারিয়েন্টে প্রথম মৃত্যুর বিষয়টি রোববার এক স্বাস্থ্য কর্মকর্তা নিশ্চিত করেছেন। খবর আল জাজিরার।

গত মাসে থাইল্যান্ডে প্রথম ওমিক্রন শনাক্ত হয়। ওমিক্রনে মৃত্যু হওয়া ৮৬ বছর বয়সী ওই নারী দক্ষিণাঞ্চলীয় সংখলা প্রদেশের বাসিন্দা ছিলেন বলে জানা গেছে।

বিদেশি ভ্রমণকারীদের ওপর কোয়ারেন্টাইন আবারও বাধ্যতামূলক করেছে থাইল্যান্ড। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র রুংরুয়েং কিটফাটি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেন, ওই নারী দীর্ঘদিন ধরেই অসুস্থ ছিলেন।

তিনি বলেন, ওমিক্রনে মৃত্যুর বিষয়টি অপ্রত্যাশিত ছিল না। কারণ এখন পর্যন্ত ১০ হাজারের বেশি ওমিক্রনের কেস শনাক্ত হয়েছে। তবে নতুন করে আরও বিধিনিষেধ জারি হবে না বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যুতে থাইল্যান্ডের অবস্থান ২৬তম। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ লাখ ২৪ হাজার ৪৮৫। এর মধ্যে মারা গেছে ২১ হাজার ৯২৮ জন এবং সুস্থ হয়ে উঠেছে ২২ লাখ ২২ হাজার ১১ জন।

এদিকে চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে প্রথম স্থানীয় ভাবে ওমিক্রনের কেস শনাক্ত হয়েছে। বেইজিংয়ের কর্মকর্তারা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। উইন্টার অলিম্পিক গেমস শুরুর কয়েক সপ্তাহ আগেই স্থানীয়ভাবে সেখানে ওমিক্রন শনাক্ত হলো।

শনিবার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনের খবরে বলা হয়েছে, নতুন করে আক্রান্তদের মধ্যে একজনের ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে। এক সংবাদ সম্মেলনে বেইজিংয়ের ডিজেজ কন্ট্রোল অথরিটির এক কর্মকর্তা বলেন, ল্যাব টেস্টের মাধ্যমে একজনের দেহে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়েছে।

টিটিএন/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]