ঘানায় ভয়াবহ বিস্ফোরণে ৫০০ ভবন ধস, বহু হতাহতের শঙ্কা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৪৯ এএম, ২১ জানুয়ারি ২০২২
ছবি: সংগৃহীত

অডিও শুনুন

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ ঘানায় স্বর্ণখনির কাজে ব্যবহৃত বিস্ফোরক বহনকারী একটি গাড়ি মোটরসাইকেলের সঙ্গে সংঘর্ষের পর বিস্ফোরণে অন্তত ১৭ জন নিহত ও ৫৯ জন আহত হয়েছেন। দেশটির সরকারের তরফ থেকে হতাহতের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। বিস্ফোরণে ভেঙে পড়েছে পাঁচশোর মতো ভবন। এতে হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, বিস্ফোরণে বহু ঘরবাড়ি ধ্বংস হয়ে গেছে। স্থানীয়দের দাবি, স্বর্ণ উত্তোলনের জন্য ট্রাকে করে বিস্ফোরক নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল খনি এলাকায়। এসময় ট্রাকেই বিস্ফোরণ ঘটে। এতে তৈরি হয় ভয়াবহ পরিস্থিতি।

দেশটির পুলিশ এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে যে, স্বর্ণখনির জন্য বিস্ফোরক বহনকারী একটি গাড়ির সঙ্গে একটি মোটরসাইকেলের সংঘর্ষের ফলে এ বিস্ফোরণ ঘটে। পুলিশের তরফ থেকে স্থানীয়দের নিরাপদে থাকার জন্য ওই এলাকা ছেড়ে আশপাশের এলাকায় যেতে আহ্বান জানানো হচ্ছে।

দেশটির জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সংগঠনের (এনএডিএমও) উপ-পরিচালক সেজি সাজি আমেদোনু বলেছেন, পাঁচশটির মতো ভবন ধসে পড়েছে।

jagonews24

জানা গেছে, দেশটির পশ্চিম অঞ্চলের বোগোসো এবং বাউডি শহরের মধ্যে অ্যাপিয়াতে বিস্ফোরণটি ঘটে। এই অঞ্চলে কানাডার মালিকানাধীন একটি স্বর্ণখনি কিনরোস রয়েছে। এই স্বর্ণখনির এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, ঘটনাটি কিনরোস স্বর্ণখনি থেকে ১৪০ কিলোমিটার দূরে ঘটেছে।

ঘানার প্রেসিডেন্ট নানা আকুফো-অ্যাডো বলেন, বিস্ফোরণের ফলে বহু জীবনের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তবে ঘটনার বিস্তারিত কিছু জানাননি তিনি। এক টুইট বার্তায় তিনি এ ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক উল্লেখ করে হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

সূত্র: আল-জাজিরা

এসএনআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]