যৌন হয়রানির অভিযোগ অস্বীকার ইলন মাস্কের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:২৬ পিএম, ২১ মে ২০২২

টেসলা ও স্পেস এক্সের প্রধান নির্বাহী ইলন মাস্কের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। তবে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বিশ্বের শীর্ষ এই ধনকুবের। অভিযোগ আনা ওই নারী মাস্কের ব্যক্তিগত প্লেনে কাজ করতেন। শনিবার (২১ মে) কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজেনেস ইনসাইডারের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, অভিযোগের বিষয়ে কোনো ধরনের মামলা না করতে ২০১৮ সালে ওই নারীকে আড়াই লাখ ডলার পরিশোধ করে স্পেস এক্স।

ভুক্তভোগীর বন্ধুর বরাত দিয়ে ইনসাইডার জানিয়েছে, মাস্কের গালফস্ট্রিম জি৬৫০ইআর বিমান ক্রুদের একজন ছিলেন ভুক্তভোগী বিমানবালা। সেখানেই মাস্কের প্রাইভেট কেবিনে প্রায়ই শরীর ম্যাসাজ করার জন্য ডাক পড়তো ওই নারীর। তেমনই এক ফ্লাইটে ওই নারীকে শরীর ম্যাসাজের চেয়েও বেশি কিছু করার প্রস্তাব দেন মাস্ক। বিনিময়ে ওই নারীর পছন্দ অনুযায়ী একটি ঘোড়াও কিনে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন।

এদিকে এ অভিযোগকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত মন্তব্য করে এক টুইট বার্তায় মাস্ক বলেন, আগামীতে আমার ওপর রাজনৈতিক আক্রমণ লক্ষ্যণীয় হারে বাড়ার ধারণা করছি। এটা তাদের ঘৃণ্য চেষ্টা। তবে কোনো বাধাই ভালো কাজ ও বাক স্বাধীনতার জন্য লড়াই করাকে থামাতে পারবে না বলেও লিখেন তিনি।

কয়েক বছর ধরেই মাস্কের সংস্থা স্পেস এক্স মহাকাশ অভিযান ও পর্যটনে যুক্ত। যুক্তরাষ্ট্রের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার চাঁদের বুকে নামার ‘আর্টেমিস’ অভিযানে ল্যান্ডার বানানোর বরাত পেয়েছে স্পেস-এক্স। মাস্কের সংস্থার স্টারলিংক-১০৯৫ ও স্টারলিংক-২৩০৫ ইন্টারনেট পরিষেবায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। গত মাসে ৪ হাজার ৪০০ কোটি ডলারে সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং অ্যাপ টুইটার কেনার প্রস্তাব দিয়েছিলেন আমেরিকার বৈদ্যুতিক গাড়ি সংস্থা টেসলার কর্ণধার মাস্ক। কিন্তু সম্প্রতি সেই চুক্তি সাময়িক ভাবে স্থগিত হয়েছে।

এমএসএম/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]