আটক হতে পারেন ইমরান খান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:৩১ পিএম, ২৫ মে ২০২২

আজ (বুধবার) ‘আজাদি মার্চে’র প্রস্তুতি নিয়েছে পাকিস্তানের ক্ষমতাচ্যুত প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দল তেহরিক-ই-ইনসাফ। এর মধ্যেই জানা গেছে যে, ইমরান খানকে আটকের পরিকল্পনা করছে দেশটির সরকার। জিও টিভির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সবার নজর আজ রাজধানী ইসলামাবাদের দিকেই। কারণ আজ পিটিআই রাজধানীর অভিমুখে যাত্রা করার জন্য প্রস্তুতি নিয়েছে। যদিও সরকার পিটিআইকে কোনো ধরনের সমাবেশের অনুমতি দেয়নি। কিন্তু তারপরেও তারা পেশোয়ার থেকে লং মাচ শুরুর প্রস্তুতি নিচ্ছে। এই লং মার্চেই দলের চেয়ারম্যান ইমরান খান এবং তার সহযোগীদের আটক করার পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

এদিকে এক শীর্ষ নিরাপত্তা কর্মকর্তার বরাত দিয়ে দ্য নিউজের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, ইমরান খানের দল বড় ধরনের যে সমাবেশের ঘোষণা দিয়েছে তা ঠেকাতে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। মূলত তার দল যেন সমাবেশ করতে না পারেন সেজন্যই ইমরান খান এবং তার দলের অন্যান্যদের আটকের পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

পিটিআই-এর আজাদী মার্চ বানচাল করতে সর্বশক্তি ব্যবহারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। মঙ্গলবার পুলিশ পিটিআই কর্মী ও কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়েছে। লাহোর, করাচি, ইসলামাবাদ এবং রাওয়ালপিন্ডিতে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে এবং দেশের বিভিন্ন অংশ থেকে রাজধানী শহরে যাওয়ার রাস্তাগুলো বন্ধ রাখা হয়েছে।

এমনকি ইসলামাবাদের রেড জোন রক্ষায় সহায়তার জন্য সেনাবাহিনীকে আহ্বান জানিয়েছে পাকিস্তান সরকার। তবে সব বাঁধা উপেক্ষা করে পিটিআই-এর চেয়ারম্যান ইমরান খান এবং অন্যান্য দলের নেতারা নতুন নির্বাচনের ঘোষণা না আসা পর্যন্ত ইসলামাবাদে অবস্থানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

এ বিষয়ে অবগত বেশ কিছু সূত্র জানিয়েছে, কর্তৃপক্ষ ইমরান খানকে আটকের পরিকল্পনার বিষয়ে বিভিন্ন সংস্থার সঙ্গে বৈঠক করেছে। এই পদক্ষেপের সবদিক এবং ফলাফল নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে।

তারা বলছে যে, এ ধরনের লং মার্চের কারণে যে ধরনের অস্থিতিশীলা তৈরি হতে পারে তা বন্ধ করতে পিটিআই-এর নেতা-কর্মীদের আটক করা ছাড়া সরকারের আর কোন বিকল্প নেই। যদিও রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় এই মুহুর্তে এই কাজ কতটা সম্ভব হবে তা এখনও বলা যাচ্ছে না।

লং মার্চে অংশ নেওয়া পিটিআই কর্মীদের বাধা দিতে ভারী শিপিং কন্টেইনার দিয়ে ইসলামাবাদে প্রবেশের সব পয়েন্টে ব্যারিকেড দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া শহরের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে দাঙ্গা-বিরোধী ইউনিট, সন্ত্রাস-বিরোধী ফোর্সসহ হাজার হাজার পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হচ্ছে।

টিটিএন/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]