দুই মাস পর সচল শ্রীলঙ্কার সাপুগাসকান্দা তেল শোধনাগার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:১৯ পিএম, ২৯ মে ২০২২

তেল কেনার জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে মৃত্যুর মতো মর্মান্তিক ঘটনাও ঘটেছে অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক গোলযোগের মধ্যে পড়া শ্রীলঙ্কায়। সেই সংকট এবার কাটবে বলে আশা করছেন দেশটির সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা। কারণ জ্বালানি তেল উৎপাদন শুরু করেছে শ্রীলঙ্কার সাপুগাসকান্দা সিলন পেট্রোলিয়াম করপোরেশন। টানা দুই মাস বন্ধ থাকার পর অপরিশোধিত তেল প্রক্রিয়াকরণে গেলো প্রতিষ্ঠানটি।

এর আগে দেশটির জলসীমায় নোঙর করা একটি মালবাহী ট্যাংকার থেকে ৭৯ হাজার মেট্রিক টন তেল আনলোড শুরু হয়। শ্রীলঙ্কার পেট্রোলিয়াম শাখার কো-চেয়ারম্যান নিদাহাস সেবকা সাঙ্গামায়া তেল উৎপাদনের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

অপরিশোধিত তেলের অভাবে গত ২১ মার্চ সাপুগাসকান্দা প্লান্টে পরিশোধন কার্যক্রম বন্ধ হয়ে যায়। উৎপাদনের শুরুতে প্রথমে ছাড় পাবে ডিজেল ও পেট্রল, এরপর বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য ন্যাফথা ও শেষে কেরোসিন। আগামী ৬ জুনের মধ্যে পরিশোধিত জ্বালানি পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। তবে উৎপাদন প্রক্রিয়া যেন সচল থাকে সেটির ব্যাপারে সরকারকে অনুরোধ করেছেন কর্মকর্তারা।

জানা গেছে, জ্বালানির দাম বাড়ার পর এখন অপরিশোধিত তেল সংগ্রহের সক্ষমতা তৈরি হয়েছে দেশটির সরকারের। বর্তমান সরকার ও সিলন পেট্রোলিয়াম করপোরেশন (সিপিসি) তাদের মুনাফা অর্জন করতে পারবে বলে প্রত্যাশা তৈরি হয়েছে।

দেউলিয়াত্বের খাতায় নাম লেখানো শ্রীলঙ্কা এবার দেশের জ্বালানির সংকট মেটাতে রাশিয়ার কাছ থেকে তেল কিনছে। চরম অর্থনৈতিক সংকটের মধ্য দিয়ে যাওয়া শ্রীলঙ্কায় প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসের নেতৃত্বে গঠিত হয়েছে নতুন সরকার। তবে এখনো গ্যাসোলিন থেকে ডিজেল পর্যন্ত সব পণ্যের নাকাল পরিস্থিতি দেশটিতে।

দুই মাস পর সচল শ্রীলঙ্কার সাপুগাসকান্দা তেল শোধনাগার

শনিবার (২৮ মে) শ্রীলঙ্কার বিদ্যুৎ ও জ্বালানি মন্ত্রী কাঞ্চনা উইজেসেকেরা বলেন, অফশোরে তেল কেনার জন্য অপেক্ষা করছিল শ্রীলঙ্কা। তিনি আরও জানান, রুশ তেলের ৯০ হাজার টন চালান কিনতে সাতশ কোটি ২২ লাখের মতো ডলার প্রদান করবে দেশটি। তিনি বলেন, ‘আমি অপরিশোধিত এবং অন্যান্য পেট্রোলিয়াম পণ্য আমদানিতে সহায়তার জন্য রাশিয়াসহ একাধিক দেশের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি’। ৯০ হাজার টনের চালানটি দুবাই-ভিত্তিক কোরাল এনার্জির মাধ্যমে অর্ডার করা হয়েছিল বলেও জানান তিনি।

পরবর্তীতেও একই কোম্পানির কাছে তেল নেওয়ার কথাও জানান এই মন্ত্রী। শোধনাগারটি ধারাবাহিকভাবে চালু রাখতে আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে আরেকটি চালানের প্রয়োজন হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

রাশিয়ার ব্যাংকের উপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞা ও ইউক্রেন আগ্রাসনের জন্য বিশ্বব্যাপী কূটনৈতিক ক্ষোভ থাকা সত্ত্বেও কলম্বো মস্কোর সঙ্গে অপরিশোধিত তেল, কয়লা, ডিজেল ও পেট্রলের সরাসরি সরবরাহের ব্যবস্থা করার আলোচনা করছে। শ্রীলঙ্কার এই মন্ত্রী বলেন, রাশিয়ার রাষ্ট্রদূতকে তিনি সরাসরি পণ্য আমদানির ব্যাপারে আলোচনার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন। তিনি বলেন, অপরিশোধিত তেল দিয়ে শুধু অভ্যন্তরীণ চাহিদা মিটবে না, পরিশোধিত জ্বালানিও দরকার।

শ্রীলঙ্কা হলো সর্বশেষ এশীয় দেশ যারা রাশিয়ার অপরিশোধিত তেল কিনছে। এর আগে ভারত ও চীন সস্তায় রাশিয়ার তেল কিনছে বলে খবর পাওয়া যায়।

সূত্র: ডেইলি মিরর, আল-জাজিরা

এসএনআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]