ডিউটিরত পুলিশের ফোন নিয়ে পালালো চোর!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:২৪ এএম, ২৫ জুন ২০২২
প্রতীকী ছবি

পুলিশের কাছ থেকেই ফোন চুরি, তাও আবার প্রকাশ্য দিবালোকে রাস্তার মাঝ থেকে! হ্যাঁ, এমন ঘটনাই ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের পুরুলিয়ায়। দায়িত্বপালনকালে পুরুলিয়া মফস্বল থানার এক সহকারী উপ-পুলিশ পরিদর্শকের (এএসআই) মোবাইল ফোন নিয়ে পালিয়েছে চোর। হারানো মোবাইল ফোন উদ্ধারে থানায় লিখিত আবেদনও জানিয়েছেন তিনি। তারপরেই বিষয়টি জনসমক্ষে আসে।

কিন্তু কীভাবে ঘটলো এ ঘটনা? অনন্ত কুমার দে নামে ওই পুলিশ কর্মকর্তা লিখিত অভিযোগপত্রে জানিয়েছেন, তিনি ঘোঙ্গা নাকা চেকপয়েন্টের কাছে গাড়ি পরীক্ষা করে জরিমানার কাজে ব্যস্ত ছিলেন। সেই সময় তার মোবাইল ফোন পুলিশের গাড়ির বনেটের ওপর রাখা ছিল। তিনি কাজে ব্যস্ত থাকার সুযোগে কেউ ফোন নিয়ে পালিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেছেন ওই এএসআই।

বিষয়টি তিনি সঙ্গে সঙ্গে জেলা পুলিশ কন্ট্রোল রুমে জানান। সেখান থেকে জানতে পারেন, মোবাইলের লোকেশন চিপিদা গ্রামে দেখাচ্ছে। তিনি দ্রুত ওই গ্রামে যান। তবে চোরের খোঁজ মেলেনি। কারণ, ফোনটি কিছুক্ষণ পরেই বন্ধ করে দেওয়া হয়।

অভিযোগপত্রে ওই পুলিশ কর্মকর্তা আরও জানিয়েছেন, তিনি যাদের জরিমানা আদায় করেছিলেন, তাদের মধ্যেই কেউ মোবাইল ফোন চুরি করেছে বলে অনুমান তার।

পুলিশের অন্য এক কর্মকর্তা বলেন, গাড়ি পরীক্ষার সময় যাত্রীর কাগজপত্র খুঁটিয়ে দেখা, যাচাই করা বা অন্যান্য নিয়ম সংক্রান্ত কাজ সামলাতে কিছুটা সময় লাগেই। এখন গাড়ির নথিপত্র যাচাইয়ের কাজ হয় অনলাইন পদ্ধতিতে। সে কারণে পুলিশ কর্মকর্তাদের মোবাইল ফোন নিয়ে কাজ করতে হয়। এদিন সেভাবেই ওই কর্মকর্তা কোনো যাত্রীর নথি যাচাইয়ের কাজ করছিলেন। তখনই সুযোগ বুঝে সবার অলক্ষ্যে মোবাইল নিয়ে পালিয়েছে চোর। তবে তার বেশি দূর যাওয়ার সম্ভাবনা কম। ফোন অন করলেই টাওয়ার লোকেশন ট্রাকিংয়ের মাধ্যমে দ্রুত উদ্ধার করা যাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

সূত্র: এই সময়

কেএএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]