ঘটক-বিজ্ঞাপনেও পাত্রী মেলেনি, শহরজুড়ে পোস্টার লাগালেন প্রকৌশলী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৩২ পিএম, ০১ জুলাই ২০২২
প্রতীকী ছবি

পাত্রী খুঁজতে সংবাদপত্রে বিজ্ঞাপন দিয়ে লাভ হয়নি। ম্যাট্রিমোনিয়াল ওয়েবসাইটের বিজ্ঞাপনও কাজে আসেনি। এমনকি ঘটকও খুঁজে দিতে পারেনি যোগ্য জীবনসঙ্গী। তাই এবার পাত্রী খুঁজতে অভিনব পথ ধরলেন ভারতের এক প্রকৌশলী। নিজের আদ্যোপান্ত লিখে পুরো শহরে ‘পাত্রী চাই’ লেখা পোস্টার-বিলবোর্ড ছড়িয়ে দিয়েছেন তিনি।

জানা যায়, তামিলনাড়ুর ভিল্লাপুরমের বাসিন্দা এমএস জগন। বয়স ২৭, পেশায় প্রকৌশলী। প্রায় পাঁচ বছর ধরে সম্ভাব্য জীবনসঙ্গীকে খুঁজে চলেছেন তিনি। কিন্তু মনের মতো মানুষ আজও পাননি। তাই শেষমেষ অন্যপথ ধরেছেন জগন।

শহরজুড়ে পোস্টার লাগিয়েছেন এ যুবক। তাতে লেখা, ‘মিস রাইট চাই’। সঙ্গে নিজের নাম, পরিচয়, গোত্র, চাকরি, বেতন, এমনকি পছন্দ-অপছন্দও গুছিয়ে লিখেছেন। রয়েছে পাত্রের ছবিও। এভাবে শহরজুড়ে অসংখ্য বিলবোর্ড, হোর্ডিং, ব্যানার লাগিয়েছেন তিনি। তার এমন কাণ্ড দেখে চক্ষু চড়কগাছ শহরবাসীর। এর মধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায় তার সেই ব্যানার-পোস্টার।

poster--2

এ প্রসঙ্গে স্থানীয় একটি টিভি চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে জগন বলেন, পাঁচ বছর ধরে জীবনসঙ্গী খুঁজছি। কিন্তু, কিছুতেই মনের মতো মানুষ পাইনি। তাই বাধ্য হয়ে অন্য উপায় বের করলাম।

তিনি বলেন, আমার কাজে অনেকেই হাসাহাসি করছে, অনেকে আমাকে নিয়ে ট্রলও করছে। কিন্তু, তাতে আমার কিছু যায় আসে না। আশা করি যোগ্য মেয়েদের পরিবার বা পাত্রী নিজেই আমাকে ফোন বা মেসেজ করবেন।

আপাতত সেই পাত্রীর অপেক্ষায় তরুণ প্রকৌশলী। ট্রলকারীদের খোঁচা দিয়ে জগন বলেন, ভালোই তো হচ্ছে। ওদের টাকায় আমি ভাইরাল হচ্ছি।

সূত্র: এই সময়

কেএএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]