ইউক্রেনের ওডেসায় রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় নিহত বেড়ে ২১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:৫৪ পিএম, ০২ জুলাই ২০২২

ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় ওডেসা অঞ্চলে রুশ বাহিনীর ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় এখন পর্যন্ত এক শিশুসহ কমপক্ষে ২১ জন নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন ইউক্রেনের কর্মকর্তারা। রাষ্ট্রীয় জরুরি সেবা সংস্থা ডিএসএনএস বলছে, সেরহিয়িভকা গ্রামের একটি নয়তলা ভবনে ক্ষেপণাস্ত্র হামলাতেই ১৬ জন মারা গেছেন। এছাড়া ওই গ্রামেরই একটি হলিডে রিসোর্টে আরেকটি ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় শিশুসহ পাঁচজন প্রাণ হারান। খবর বিবিসির।

গত কয়েকদিনে ইউক্রেনের শহরগুলোতে দফায় দফায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। তবে রুশ বাহিনী বেসামরিক লক্ষ্যবস্তুতে আক্রমণ চালাচ্ছে এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ।

সেরহিয়িভকা গ্রামের বাসিন্দা, ৬০ বছর বয়সী ইউলিয়া বন্ডার বলেন, আমরা তিনটি বিস্ফোরণের শব্দ শুনেছি। এখন দেখা যাচ্ছে বিনোদন কেন্দ্রটির কিছুই আর অবশিষ্ট নেই। এটা খুবই শান্ত একটি গ্রাম। আমরা কখনো চিন্তা করিনি যে এরকম কিছু হতে পারে।

ডিএসএনএস জানিয়েছে, শুক্রবার মধ্যরাত ১টার দিকে সেরহিয়িভকা গ্রামে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানো হয়।

বিস্ফোরণের পর নয় তলা ভবনে দমকল কর্মীদের উদ্ধারকাজের একটি ভিডিও প্রকাশ করেছে তারা।

ডিএসএনএস জানিয়েছে, এই হামলায় ছয় শিশুসহ মোট ৩৮ জন আহত হয়েছে। ডিএসএনএসের মুখপাত্র মারিনা মার্টিনেঙ্কো ইউক্রেনের একটি টেলিভিশনকে দেওয়া সাক্ষাতকারে বলেন, ক্ষেপণাস্ত্র হামলার পর ভবনটির কাছের একটি দোকানেও আগুন জ্বালিয়ে দেওয়া হয়। পরে দমকলকর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

ওই ভবনটিতে অন্তত দেড়শ মানুষ থাকতো বলে ধারণা করা হচ্ছে। ইউক্রেনের কর্মকর্তারা বলছেন, রাশিয়ার যুদ্ধ বিমান থেকে তিনটি ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করা হয়েছে। ওডেসার আঞ্চলিক প্রশাসনের মুখপাত্র সেরহি ব্রাটচুক বলেন, ধারণা করা হচ্ছে রুশ বাহিনী সোভিয়েত আমলের এক্স-২২ ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহার করেছে।

শহরের মেয়র গেনাডি ত্রুখানভ জানান, সেরহিয়িকভার কাছে কোনো সেনা স্থাপনা বা রাডার স্টেশন নেই, তবে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এর বিপরীত দাবি করছে। ওডেসার মানুষ আরো রুশ হামলার ভয়ে আতঙ্কে দিনযাপন করছে বলে মন্তব্য করেছেন শহরের মেয়র ত্রুখানভ।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির প্রধান কর্মকর্তা আন্দ্রিই ইয়েরমাক মন্তব্য করেছেন যে, রাশিয়া ‘সন্ত্রাসী রাষ্ট্রের’ মত আচরণ করছে। তিনি বলেন, যুদ্ধক্ষেত্রে হারের জবাবে তারা বেসামরিক নাগরিকদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করা শুরু করেছে।

রাশিয়া এই মুহূর্তে ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলে যুদ্ধের দিকে মনোনিবেশ করলেও দেশটির সব অঞ্চলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা অব্যাহত রেখেছে। রাশিয়া শুধুমাত্র সেনা স্থাপনা ও ঘাঁটিতে হামলা করছে বলে দাবি করলেও মাঝেমধ্যেই হামলার শিকার হচ্ছে বেসামরিক আবাসস্থল।

টিটিএন/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]