চবির ১৮ শিক্ষকের আত্মীকরণ : হাইকোর্টের আদেশ আপিলেও বহাল

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:০১ পিএম, ১৪ আগস্ট ২০১৮

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ১৮ শিক্ষককে শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইআর) থেকে পুনরায় কলেজে ফেরত পাঠানোর সিদ্ধান্তের ওপর হাইকোর্টের ছয় মাসের স্থগিতাদেশ বহাল রেখেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। ওই স্থগিতাদেশ বহাল রেখে হাইকোর্টে রুল নিষ্পত্তি করতে বলেছেন আপিল বিভাগ।

এ সংক্রান্ত আবেদনের শুনানি নিয়ে মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বে চার সদস্যের আপিল বিভাগ এ আদেশ দেন।

আদালতে আজ শিক্ষকদের পক্ষে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এ এম আমিন উদ্দিন। তাকে সহায়তা করেন আইনজীবী ফাহমিদ সরওয়ার।

পরে এ এম আমিন উদ্দিন সাংবাদিকদের জানান, আপিল বিভাগ হাইকোর্টের স্থগিতাদেশ বহাল রেখে রুল নিষ্পত্তি করতে বলেছেন।

২০১২ সালে যাত্রা শুরু করে চবির ইনস্টিটিউট অব এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ (আই ই আর)। ওই সময়ে শিক্ষক হিসেবে চবি ল্যাবরেটরি কলেজের ১৮ শিক্ষককে সেখানে আত্মীকরণ করা হয়। ২০১৮ সালে জানুয়ারিতে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) চবি প্রশাসন বরাবর একটি চিঠি পাঠায়। চিঠিতে চবি ল্যাবরেটরি কলেজ থেকে ১৮ শিক্ষককে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইইআর বিভাগে আত্মীকরণের বিষয়ে সংস্থাটির অনুমোদন ছিল না বলে জানায়। পরে ৩১ মে অনুষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫১৫তম সিন্ডিকেট সভায় ওই সুপারিশ বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

পরে ১৮ শিক্ষকদের আত্মীকরণ বাতিল করে চবি কর্তৃপক্ষ অফিস আদেশ জারি করে। এ সিদ্ধান্তের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে শিক্ষকরা পৃথক দুটি রিট করেন। ওই রিটের শুনানি নিয়ে গত ১৫ জুলাই হাইকোর্ট চবির ১৮ শিক্ষককে আইইআর থেকে পুনরায় কলেজে ফেরত পাঠানোর আদেশ ছয় মাসের জন্য স্থগিত করে রুল জারি করেন। এর বিরুদ্ধে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ আপিল বিভাগে আবেদন করেন। যেটি মঙ্গলবার নিষ্পত্তি করেন আপিল বিভাগ।

এফএইচ/এমএমজেড/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :