পাটগ্রাম উপজেলার স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহীনের মনোনয়নপত্র বৈধ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:০৫ পিএম, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীনের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করে জেলা রির্টানিং কর্মকর্তার দেয়া আদেশ ৬ মাসের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে, জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার আদেশ কেন বাতিল ঘোষাণা করা হবে না এই মর্মে রুল জারি করেছেন আদালত।

প্রধান নির্বাচন কমিশনারকে এই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার আদেশ স্থগিত চেয়ে ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীনের করা রিটের শুনানি শেষে বুধবার হাইকোর্টের বিচারপতি জেবিএম হাসান ও বিচারপতি খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

হাইকোর্টের এই আদেশের ফলে, আগামী ১০ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য উপজেলা নির্বাচনে ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীনের অংশগ্রহণে বাধা নেই বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী।

আদালতে আজ ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীনের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট মাজেদুল ইসলাম পাটোয়ারী, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোতাহের হোসেন সাজু এবং নির্বাচন কমিশনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী তৌহিদুল ইসলাম।

আইনজীবী মাজেদুল ইসলাম পাটোয়ারী বলেন, আদালত শুনানি শেষে ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীনের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করে জেলা রির্টানিং কর্মকর্তার আদেশ ৬ মাসের জন্য স্থগিত করেছেন। একই সঙ্গে, রিটার্নিং কর্মকর্তার আদেশ কেন বাতিল ঘোষাণা করা হবে না এই মর্মে রুল জারি করেছেন আদালত। এছাড়া আদালত মৌখিক আদেশে বলেছেন, এ আদেশের ব্যত্যয় ঘটলে আদালত অবমাননার মামলা হতে পারে।

আইনজীবী আরও বলেন, আদালত অপর এক আদেশে পাটগ্রাম উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী মোছা. সাজেদা খাতুনের মনোনয়পত্রও বৈধ ঘোষণা করেছেন। আয়কর সংক্রান্ত জটিলতার কারণে জেলা রির্টানিং কর্মকর্তা তার মনোনয়নপত্র বাতিল করেছিল।

প্রসঙ্গত, পাটগ্রাম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত রুহুল আমিন বাবুল ও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীন মনোনয়নপত্র জমা দেন। যাচাই-বাছাইয়ে নিয়ম অনুযায়ী ভোটারদের পর্যাপ্ত স্বাক্ষর না থাকায় স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহীনের মনোনয়নপত্রটি বাতিল ঘোষণা করেন রির্টানিং কর্মকর্তা অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) রফিকুল ইসলাম।

এরই মধ্য দিয়ে এ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে একমাত্র প্রার্থী হিসেবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হবার সুযোগ পান আওয়ামী লীগ মনোনিত বর্তমান চেয়ারম্যান রুহুল আমিন বাবুল।

এই আদেশ স্থগিত চেয়ে হাইকোর্টে রিট করেন শাহীন। কিন্তু মামলার ফাইল (নথি) হাইকোর্টের রিট শাখা থেকে গায়েব হয়ে গেলে নথি এ বিষয়ে (১৯ ফেব্রুয়ারি) মঙ্গলবার শুনানি অনুষ্ঠিত হয়নি। পরে নতুন করে ফাইল উপস্থাপন করলে আজ বুধবার শুনানি শেষে এই আদেশ দেন হাইকোর্ট।

এফএইচ/এমবিআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :