৪৪ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে ফেসবুকের সেই মামলার শুনানি ১৪ ডিসেম্বর

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৩৪ পিএম, ০১ ডিসেম্বর ২০২০

ফেসবুকডটকমডটবিডি (facebook.com.bd) নামে বিটিসিএল থেকে ডোমেইন বরাদ্দ নেয়ায় এস কে শামসুল আলম নামের এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে ৫০ হাজার মার্কিন ডলার (৪৪ লাখ টাকা) ক্ষতিপূরণ মামলার স্থায়ী নিষেধাজ্ঞার ওপর শুনানির জন্য আগামী ১৪ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) ঢাকা জেলা জজ মোহাম্মদ শওকত আলী চৌধুরী নতুন এ দিন ধার্য করেন। এদিন আসামি স্থায়ী নিষেধাজ্ঞার ওপর শুনানির জন্য ধার্য ছিল। তবে ফেসবুকের নিয়োজিত আইনজীবী অসুস্থ থাকায় শুনানির জন্য সময়ের আবেদন করেন। পরে সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে আগামী ১৪ ডিসেম্বর পরবর্তী দিন ধার্য করেন আদালত।

গত ২২ নভেম্বর ফেসবুকডটকমডটবিডি নামে বিটিসিএল থেকে ডোমেইন বরাদ্দ নেয়ায় বাংলাদেশি শামসুল আলমের বিরুদ্ধে ৫০ হাজার মার্কিন ডলার (৪৪ লাখ টাকা) ক্ষতিপূরণ চেয়ে ফেসবুক ঢাকা জেলা জজ আদালতে ট্রেডমার্ক অ্যাক্ট ৯৬ ও ৯৭ ধারায় এবং ফৌজদারি আইনের ১৫১ ধারায় মামলা করেন। একই সঙ্গে মামলায় ডোমেইনটির ওপর স্থায়ী নিষেধাজ্ঞা চাওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে ১ ডিসেম্বর ঢাকার জেলা ও দায়রা জজ শওকত আলী চৌধুরীর আদালতে শুনানির কথা ছিল।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ‘এ ওয়ান সফটওয়্যার লিমিটেড’ নামে বাংলাদেশি একটি প্রতিষ্ঠান ‘ফেসবুকডটকমডটবিডি’ নামে একটি দেশি ডোমেইন খোলে। এরপর ওই ডোমেইনটি ৬ মিলিয়ন ডলারে বিক্রি করা হবে বলে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ জানতে পারে। তারপর এটি বন্ধ করার জন্য ফেসবুক কর্তৃপক্ষ বিটিসিএল ও সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে নোটিশ পাঠায়। নোটিশ পাঠালেও তারা ডোমেইনটি বন্ধ করেনি। বরং ডোমেইনটি বিক্রির জন্য ওই ব্যক্তি বিজ্ঞাপন দেন। এর আগে ফেসবুকডটকমডটবিডি নামে বিটিসিএল থেকে ডোমেইন বরাদ্দ নেয়ায় এস কে শামসুল আলমের বিরুদ্ধে আইনজীবীর মাধ্যমে নোটিশ পাঠায় ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল) থেকে ‘ফেসবুকডটকমডটবিডি’ (facebook.com.bd) নামে ২০০৮ সালে একটি ডোমেইন বরাদ্দ নেন এস কে শামসুল আলম। ‘ফেসবুকডটকমডটবিডি’ নামে ডোমেইনে ‘ফর সেল’ শিরোনামে বলা হয়- www.facebook.com.bd this domain is for sale. Direct sell contact: [email protected] a fixed "Buy it Now" price has been set of $US 6000000(Six Millions United States Dollars Only). This is subject to change at any time.

জেএ/এমএসএইচ/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]