গভর্নর ও দুদক চেয়ারম্যানের বক্তব্য শুনবেন হাইকোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:১৭ পিএম, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১

ব্যাংকিংসহ বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠানের অনিয়ম, দুর্নীতি বন্ধে সমন্বিতভাবে কিভাবে কাজ করা যায়, সে বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর, দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) ও বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) চেয়ারম্যানের মতামত জানতে চেয়েছেন হাইকোর্ট। আগামী ৯ মার্চ তাদের বক্তব্য শুনবেন আদালত।

পিপলস লিজিংয়ের ঋণ খেলাপিদের শুনানিতে মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) হাইকোর্টের কোম্পানি বেঞ্চের বিচারক মোহাম্মদ খুরশীদ আলম সরকারের একক বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে আজ কোম্পানির পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার মেজবাহুর রহমান। বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার খান মো. শামীম আজিজ।

আইনজীবী মেজবাহুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, আদালত প্রথমে ২৫ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) বেলা ১১টা থেকে ১২টার মধ্যে ভার্চুয়ালি তাদের যুক্ত হতে বলেছিলেন। কিন্তু পরে তারিখ পরিবর্তন হয়েছে। আগামী ৯ মার্চ তারিখ রাখা হয়েছে। আর যেসব খেলাপি আজ উপস্থিত হননি ওইদিন ঋণ খেলাপিদেরকেও আসতে বলা হয়েছে।

তবে বাংলাদেশ ব্যাংকের আইনজীবী খান মোহাম্মদ শামীম আজিজ বলেছেন, তারিখ পরিবর্তনের কথা তিনি এখনো জানেন না।

আগামী ২৫ ফেব্রুয়ারি আদালত যে বক্তব্য শুনবেন, সে আদেশটি বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের কাছে পৌঁছে দিতে বলা হয়েছে। পরে তারিখ পরিবর্তন হয়েছে কি -না বলতে পারেননি তিনি।

এফএইচ/জেডএইচ/এমআরআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]