ভালো খেলায় ক্ষুদে ফুটবলারকে মোটরসাইকেল দিলেন ব্যারিস্টার সুমন

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩৪ পিএম, ৩০ জুলাই ২০২১

ফুটবল প্রশিক্ষণে প্রথমস্থান অর্জন করায় ক্ষুদে ফুটবলার নাসির হোসেনকে একটি মোটরসাইকেল উপহার দিয়েছেন যুবলীগের কেন্দ্রীয় আইন সম্পাদক ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।

শুক্রবার (৩০ জুলাই) হবিগঞ্জের চুনারুঘাটে ‘সুমন ফুটবল অ্যাকাডেমি’র প্রশিক্ষণ ভেন্যুতে একটি মোটরসাইকেল ক্ষুদে ফুটবলারের হাতে তুলে দেনে তিনি।

ব্যারিস্টার সুমনের আশা এই ক্ষুদে ফুটবলার নাসির একদিন ফুটবলকে বিশ্বের দোঁরগোড়ায় নিয়ে যাবে।

jagonews24

মোটরসাইকেল হস্তান্তরের সময় ফেসবুক লাইভে আসেন সুমন। তিনি বলেন, ‘করোনার প্রাদুর্ভাবে কে বাঁচেন, কে মরেন বলা যাচ্ছে না। আমিও মরতে পারি, তবে মৃত্যুর আগ পর্যন্ত মানুষের কল্যাণে কাজ করে যেতে চাই।’

ব্যারিস্টার সুমন বলেন, ‘সুমন ফুটবল অ্যাকাডেমির উদ্যোগে কোচের অধীনে ফুটবল প্রশিক্ষণ হয়েছে। এ প্রশিক্ষণে ১০ মিনিটের মধ্যে পুরো মাঠে নাসির নামে এ ছেলেটি নয়টি চক্কর দিয়েছে। সবার মধ্যে সে প্রথম হয়েছে। নাসিরের বয়স অল্প, মাত্র ১৭ বছর। কিন্তু সে খুব মনযোগী ফুটবলার। নাসির অনেক দূর থেকে ব্যারিস্টার সুমন অ্যাকাডেমিতে প্রশিক্ষণে আসে।’

jagonews24

‘এ জন্য আমি তাকে ৫০ হাজার টাকা দিয়ে মোটরসাইকেলটি কিনে দিলাম। যদিও এটা একটা পুরাতন (সেকেন্ড হ্যান্ড) মোটরসাইকেল। যেহেতু সে প্রশিক্ষণে প্রথম হয়েছে, তাই এখনই একজনের থেকে কিনে তাকে মোটরসাইকেলটি দিচ্ছি’ যোগ করেন সুমন।

তিনি আরও বলেন, ‘তার বাবা চা বিক্রি করে জীবিকা নির্বাহ করেন। আমি মনে করি—এ উপহারটি তার জীবনে বড় হতে আরো ভূমিকা রাখবে। এ মোটরসাইকেলটির কারণে তার প্রশিক্ষণে আসা-যাওয়া সহজ হবে।’

jagonews24

এ সময় ব্যারিস্টার সুমন পাশে থাকা নাসিরের কাছে জানতে চান জীবনে সে কী হতে চায়? জবাবে নাসির বলেন, ‘বড় ফুটবলার হতে চাই। বাংলাদেশের জাতীয় দলে খেলতে চাই। বড় ফুটবলার হলে আমি নিজের এলাকাকে, দেশকে এগিয়ে নেয়ার চেষ্টা করব।’

সুমন বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি—নাসির নামে এই ক্ষুদে ফুটবলার একদিন বাংলাদেশের জাতীয় দলকে নেতৃত্ব দিতে পারে। আল্লাহ চাইলে সবই সম্ভব।’

ব্যারিস্টার সুমন ফুটবল অ্যাকাডেমি থেকে নতুন নতুন ফুটবলার তৈরি হয়ে একদিন বাংলাদেশের ফুটবলকে অনেক দূর এগিয়ে নিয়ে যাবে বলেও প্রত্যাশা করেন ব্যারিস্টার সুমন।

এফএইচ/এএএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]