ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় ১১ আইনজীবীর জামিন

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:১৩ পিএম, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১
ফাইল ছবি

বিএনপিপন্থী আইনজীবীদের বিক্ষোভ মিছিলে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীকে জড়িয়ে মানহানিকর স্লোগান দেওয়ার অভিযোগে করা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় ময়মনসিংহ জেলা বারের সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট মো. নূরুল হকসহ ১১ আইনজীবীকে আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।

আট সপ্তাহের জন্য তাদের এ জামিন দেওয়া হয়েছে। জামিনের মেয়াদ শেষে আসামিদের আদালতে আত্মসমর্পণ করার জন্য বলা হয়েছে। হাইকোর্টের আদেশের বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেন অ্যাডভোকেট আব্দুল জব্বার ভূঁইয়া।

আসামিরা আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে রোববার (১৯ সেপ্টেম্বর) হাইকোর্টের বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলাম ও বিচারপতি কে এম জাহিদ সারওয়ার কাজলের ভার্চুয়াল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে এদিন জামিন আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট আব্দুল জব্বার ভূঁইয়া। তার সঙ্গে ছিলেন মো. (এম) মাসুদ রানা ও অ্যাডভোকেট এরশাদ হোসাইন রাশেদ।

অ্যাডভোকেট আব্দুল জব্বার ভূঁইয়া জাগো নিউজকে বলেন, তাদের আট সপ্তাহের আগাম জামিন দিয়েছেন আদালত।

গত ৩১ আগস্ট কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের নেতাকর্মীরা ময়মনসিংহ আদালত এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল করেন। ওই মিছিলে তারা বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীকে জড়িয়ে মানহানিকর স্লোগান দেওয়ার অভিযোগ এনে গত ১৪ সেপ্টেম্বর ময়মনসিংহে বিএনপিপন্থী ১১ আইনজীবীর নামে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম মুহাম্মদ আজাদ।

ওই ১১ আইনজীবী হলেন ময়মনসিংহ জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি ও জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট মো. নূরুল হক, অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম চৌধুরী, অ্যাডভোকেট ওসমান গনি মল্লিক মাখন, অ্যাডভোকেট মাহবুবুর রশিদ তামান্না, অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ, অ্যাডভোকেট আরিফুল ইসলাম সোহাগ, অ্যাডভোকেট রাইসুল ইসলাম, অ্যাডভোকেট তফাজ্জল হোসেন, অ্যাডভোকেট আহসান উল্লাহ আনার, অ্যাডভোকেট জহিরুল ইসলাম ও অ্যাডভোকেট শামসুন্নাহার।

এফএইচ/এমআরআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]