গণপরিবহনে ভাড়া নির্ধারণে বিধি আছে কি না, জানতে লিগ্যাল নোটিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:৫০ পিএম, ০২ ডিসেম্বর ২০২১
ফাইল ছবি

গণপরিবহনে ভাড়া নির্ধারণে কোনো বিধি প্রণয়ন করা হয়েছে কি না তার ব্যাখ্যা চেয়ে সরকারে সংশ্লিষ্টদের প্রতি লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

একই সঙ্গে গণপরিবহনে অযৌক্তিক ও অস্বাভাবিক ভাড়া আদায়, ভাড়া বৃদ্ধির নামে নাগরিকদের হেনস্তা বন্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের কথা বলা হয়েছে নোটিশে।

বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব, বিআরটিএ’র চেয়ারম্যান ও বিআইডব্লিউটিএ’র চেয়ারম্যানকে বিবাদী করে এই নোটিশ পাঠানো হয়। রেজিস্ট্রি ডাকযোগে এ নোটিশ পাঠানো হয়।

নোটিশ পাঠানোর বিষয়ে জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আবু তালেব।

তিনি জানান, বাসের ওয়ে বিল বন্ধসহ সাত দাবিতে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

নোটিশ পাওয়ার সাতদিনের মধ্যে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে বলা হয়েছে, অন্যথায় রিট করা হবে বলেও জানান আইনজীবী আবু তালেব।

সাত দফা দাবি

১. ঢাকাসহ সারাদেশে যেসব গণপরিবহন পেট্রল, ডিজেল ও গ্যাসে চলে তা নির্ধারণ করে প্রতিটি গণপরিবহনে বিআরটিএ’র লোগোসহ পরিবহনের সামনে-পিছনে নেমপ্লেট আকারে সাটাতে হবে। যাতে যাত্রীরা বুঝতে পারে।

২. ঢাকা শহরসহ দেশের সব রুটের স্টপেজ টু স্টপেজের কোথার ভাড়া কতো তা নির্ধারণ করে প্রচলিত আইন অনুযায়ী সব পরিবহনের মালিক শ্রমিকদের ভাড়া চার্ট টানানো বাধ্যতামূলক করতে হবে। একইসঙ্গে সুনির্দিষ্ট স্টপেজে সাইনবোর্ড কিংবা ইলেকট্রনিকস বিলবোর্ডে সেগুলো লিখে ডিসপ্লে করতে হবে।

৩. ভাড়া নির্ধারণে আইনগত ভিত্তি কি? মালিকদের দাবির মুখেই ভাড়ার বাড়ানোর অনুমোদন দেওয়া হয়। কিলোমিটার প্রতি বাস ও লঞ্চের ভাড়া নির্ধারণে সংসদ প্রণীত আইনের অধীনে কখন ও কতো বছর পরে ভাড়া বৃদ্ধি করা হবে এ মর্মে কোনো বিধি রয়েছে তার স্পষ্ট ব্যাখ্যা দিতে হবে।

৪. ছাত্র-ছাত্রীদের বাস-লঞ্চ ভাড়া অর্ধেক নেওয়ার সিদ্ধান্ত অনতিবিলম্বে বিজ্ঞাপন আকারে প্রকাশ করতে হবে।

৫. সারাদেশে কতোগুলো গণপরিবহনের ফিটনেস সার্টিফিকেট আছে ও কতোগুলোর নেই তা জানাতে হবে। কতো সংখ্যক চালকের লাইসেন্স আছে সেটিও জানাতে হবে।

৬. ‘ওয়ে-বিল’ মানুষ ঠকানোর হাতিয়ার মাত্র। এটার কথিত প্রয়োগ বন্ধ ও বাতিল করতে হবে।

৭. আনুষঙ্গিক অন্যান্য সব কাজ যা যাত্রী কল্যাণে করা দরকার তা দ্রুত বাস্তবায়ন করতে হবে।

এফএইচ/জেডএইচ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]