পেগাসাস স্পাইওয়্যারের কার্যক্রম বন্ধে হাইকোর্টের রুল

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ পিএম, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১
প্রতীকী ছবি

বাংলাদেশে পেগাসাস স্পাইওয়্যারের কার্যক্রম নিয়ে ডিজিটাল সিকিউরিটি এজেন্সির নিষ্ক্রিয়তা কেন অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

ডিজিটাল সিকিউরিটি এজেন্সি, ডাক ও টেলি যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের সচিব, তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সচিবসহ সংশ্লিষ্ট চার বিবাদীকে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

রোববার (৫ ডিসেম্বর) এ সংক্রান্ত এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

এদিন আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার ইমরান সিদ্দিক। তাকে সহযোগিতা করেন ব্যারিস্টার সাবিত আহমেদ খান ও মাহমুদ আল মামুন।

গত ৫ সেপ্টেম্বর এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি একটি আইনি নোটিশ পাঠানো হয়। তবে সে নোটিশের বিষয়ে পদক্ষেপ না নেওয়ায় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন সংযুক্ত করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেন সুপ্রিম কোর্টের চার আইনজীবী। রিটকারী আইনজীবীরা হলেন- মুজাহিদুল ইসলাম, আব্দুল আলীম, সাঈদ মো. রায়হান উদ্দিন ও মো. মনিরুজ্জামান।

রিট আবেদন থেকে জানা গেছে, পেগাসাস হলো ইসরায়েলি সাইবার আর্মস সংস্থা (এনএসও) গ্রুপ দ্বারা নির্মিত একটি স্পাইওয়্যার। যা মোবাইল ফোনের আইওএস এবং অ্যান্ড্রয়েডের বেশিরভাগ নতুন সংস্করণে গোপনে যুক্ত করে গুপ্তচরবৃত্তির জন্য ইনস্টল করানো হয়। এতে দেশের প্রত্যেক নাগরিকের গোপনীয়তা তথা প্রাইভেসি হুমকির মুখে পড়ছে। তারা বাংলাদেশের সব পেশার মানুষকে নজরদারি করছে। সবার প্রাইভেসি নষ্ট করছে। তাই বিষয়টি নিয়ে ব্যবস্থা নেওয়া জরুরি হয়ে উঠেছে।

এফএইচ/এমকেআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]