মাসের ৭ তারিখের মধ্যে বিচারকদের কর্মসম্পাদন প্রতিবেদন পাঠাতে হবে

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৪২ পিএম, ২৩ নভেম্বর ২০২২
ফাইল ছবি

দেশের অধস্তন আদালতের বিচারকদের মাসিক কর্মসম্পাদন প্রতিবেদন (রিপোর্ট) অনলাইনে পূরণ করার জন্য নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। প্রতি মাসের ৭ তারিখের মধ্যে অধস্তন আদালত মনিটরিং কমিটিতে এ প্রতিবেদন পাঠাতে হবে।

প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নির্দেশনায় সোমবার (২১ নভেম্বর) সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়।

সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেল মো. গোলাম রব্বানী সই করা বিজ্ঞপ্তিতে, চলতি বছরের ২৭ জানুয়ারি প্রধান বিচারপতি দেশের আটটি বিভাগের প্রত্যেক বিভাগের জন্য অধস্তন আদালতের কার্যক্রম তদারকির করতে হাইকোর্টের একজন বিচারপতির নেতৃত্বে পৃথক আটটি (মনিটরিং কমিটি ফর সাবর্ডিনেট কোর্টস) মনিটরিং কমিটি গঠন করে দিয়েছেন। সেই সঙ্গে মনিটরিং কমিটির জন্য ও বিচারপতিদের সাচিবিক সহায়তা দিতে সুপ্রিম কোর্টের বিচার বিভাগীয় কর্মকর্তাদের দায়িত্ব দিয়েছেন।

এতে আরও বলা হয়, দেশের সব আদালতের মাসিক কর্মসম্পাদন বিবরণী পাঠানের জন্য একটি সফটওয়্যার প্রস্তুত করা হয়েছে। দেশের অধস্তন আদালতে কর্মরত বিচার বিভাগীয় কর্মকর্তাদের কর্মসম্পাদন বিবরণী তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় বিশ্লেষণের জন্য এ সফটওয়্যারে তথ্য দেওয়া আবশ্যক। এর পরিপ্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্টের ওয়েবসাইটের mcsc.supremecourt.gov.bd ব্যবহার করে প্রতি মাসের ৭ তারিখের মধ্যে অধস্তন আদালতের বিচারকদের মাসিক কর্মসম্পাদন বিবরণী সফটওয়্যারে পূরণ করতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এক্ষেত্রে অধস্তন দেওয়ানি ও ফৌজদারি আদালত এবং ট্রাইব্যুনালগুলোর মাসিক, ত্রৈমাসিক ও বাৎসরিক মামলা নিষ্পত্তির বিবরণ এরই মধ্যে পাঠানোর ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে বলা হয়েছে। একই সঙ্গে অধস্তন আদালতের বিচারকদের মাসিক কর্মসম্পাদন বিবরণীর হার্ড ও সফট কপি সংশ্লিষ্ট মনিটরিং কমিটির সাচিবিক সহায়তা প্রদানকারী কর্মকর্তার কাছে পাঠানো বাতিল করা হয়েছে।

এফএইচ/আরএডি/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।