পরিবেশ ছাড়পত্রহীন ডাইং-ওয়াশিং কারখানা, ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:১৭ এএম, ২৯ নভেম্বর ২০২২

গাজীপুর জেলায় পরিবেশগত ছাড়পত্রহীন ডাইং ও ওয়াশিং কারখানাগুলোর বিরুদ্ধে তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

পরিবেশ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) ও গাজীপুরের জেলা প্রশাসককে (ডিসি) এ বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ করার জন্য বলেছেন আদালত। তদন্ত করে আগামী দুই মাসের মধ্যে এ বিষয়ে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

এছাড়া পরিবেশ দূষণকারী কারখানা কেন বন্ধ করা হবে না, তাও জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইহোর্ট।

এ সংক্রান্ত রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে সোমবার (২৮ নভেম্বর) হাইকোর্টের বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এসব আদেশ দেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী মো. কাওসার হোসাইন। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অরবিন্দ কুমার রায়। তার সঙ্গে ছিলেন সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মোহাম্মদ আব্বাস উদ্দিন ও সামসুন নাহার লাইজু।

এর আগে প্রতিকার চেয়ে গাজীপুরের মেহেদী হাসান নামের এক বাসিন্দা হাইকোর্ট গত ৩ নভেম্বর রিটটি দায়ের করেন। সে রিটের শুনানি নিয়ে রুলসহ আদেশ দেন হাইকোর্ট।

রিট আবেদনে বলা হয়েছে, ডাইং ও ওয়াশিং কারখানা প্রতিষ্ঠা করার জন্য বিধি মোতাবেক পরিবেশগত ছাড়পত্র গ্রহণ বাধ্যতামূলক। কিন্তু অনেক ওয়াশিং ও ডাইং কারখানা রয়েছে যারা পরিবেশগত ছাড়পত্র পাওয়ার জন্য যে মানদণ্ডে উন্নিত হওয়া দরকার তা তাদের নেই। বিধায় পরিবেশগত ছাড়পত্র না থাকার পরও মারাত্মকভাবে পরিবেশ দূষণ করে কারখানাসমূহ পরিচালনা করছে।

এর ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে সাধারণ জনগণ এবং স্থানীয় পরিবেশের ভারসাম্য। গাজীপুর জেলায় এ জাতীয় পরিবেশগত ছাড়পত্রহীন ডাইং ও ওয়াশিং কারখানাগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ জানিয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বরাবর আবেদন করলেও তারা কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

এফএইচ/এমএইচআর

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।