অমেরুদণ্ডী প্রাণী

মো. ইয়াকুব আলী
মো. ইয়াকুব আলী মো. ইয়াকুব আলী
প্রকাশিত: ১১:৪৫ পিএম, ০৭ অক্টোবর ২০২১

বাবা চেয়েছিলেন হবে এক পুত্র সন্তান
জ্বালাবে বাতি রাখবে বংশের মান।
কিন্তু একদিন ভোরবেলা তীব্র চিৎকারে
স্বর্গের পরী যেন আসলো ভূপৃষ্ঠে নেমে।
অবশেষে ভাঙলো বাবার মান
কন্যাকে দিলেন আকাঙ্খিত দর্শন।

কন্যা তখন বেড়ে উঠে সবার আদরে
দেখতে দেখতে সে পা দেয় কৈশোরে
কন্যার রূপের গুনের খ্যাতি সারা পাড়াময়
দুষ্টু ছেলেরা স্কুল শেষে প্রতিদিন পিছু নেয়।
মায়ের বাড়ে উৎকণ্ঠা বাবার কপাল যায় কুঁচকে
কন্যার জীবন আটকা পড়ে শতেক বিধিনিষেধে।

কৈশোর পেরিয়ে কন্যা তারুণ্যে পা দিলো
জীবনে তার নতুন নিয়মকানুন আরও যোগ হলো।
নিয়ম-কানুন পড়াশোনায়, নিয়ম-কানুন চলাফেরায়
বিধিনিষেধে আটকা পড়ে দম ফেলায় হয় দায়।
বুদ্ধি এলো, কন্যার এবার দিয়ে দাও একটা বিয়ে
ভালো একটা পাত্রের সন্ধানে সবাই পড়ে নেমে।

বিয়ের পরে কন্যা ভাবলো এইবার বুঝি সে স্বাধীন
স্বামীর সংসার গড়বে তুলে করে তিলতিল।
কোথায় সেই স্বাধীনতা, কোথায় সেই সোনার হরিণ
শাশুড়ি, ননদের খোঁটায় কাটে এক একটা দিন।
কন্যা ভাবে সন্তান আসলে কোলজুড়ে
গড়বে তুলে স্বাধীনতা দিয়ে তাকে মানুষরূপে।

কন্যার কোল আলো করে এলো স্বর্গের রাজপুত্তুর
কন্যার মনের কোণে খেলে যায় আনন্দ হাজার।
ছোট থেকে বেড়ে পুত্র, কন্যার কোল ছাড়ে
মাকে আর তার হয় না দরকার চলে সে এড়িয়ে।
একসময় বিয়ে করে পুত্র চলে যায় নিজের বাড়ি
সারা বাড়িময় কন্যা একাকি করে যে পায়চারি।

দুদণ্ড অবসরে কন্যা এইবার ভাবেন বসে বসে
সারাটা জীবন কেন আমাকে বাঁচতে হলো পরের মুখ চেয়ে।
কেন আমি হলাম না স্বাবলম্বী বাপ ভাইদের মতো
নিজের ইচ্ছেমতো চলতে পারলে কতোই না ভালো হতো।
আসলে এই সমাজ সংসার চায়নি কন্যা স্বাবলম্বী হোক
কন্যা যদি স্বাবলম্বী হয় দুষবে কাকে সমাজের লোক।

এইভাবে আর কত মার খাবে আমাদের কন্যা জায়া
কবে আমাদের জাগবে বোধ জাগবে মমতা মায়া।
কন্যারাও হোক মেরুদণ্ডী প্রাণী দাঁড়াক পুত্রদের সারিতে
কন্যা পুত্র সমান অধিকার সেই বোধ জাগুক আমাদের মনে।
কন্যা যদি মর্যাদা না পায়, না পারে এগোতে
তাহলে যে এই ব্রহ্মাণ্ডের অগ্রগতি যাবেই থেমে।
পেরিয়েছে কন্যারা আমাদের অনেকটা বন্ধুর পথ
দিকে দিকে উড়িয়ে চলেছে নিজেদের বিজয়রথ।
আরও অনেক বন্ধুর পথ দিতে হবে পাড়ি
আমরা যেন সব সন্তানদের একই পাল্লায় মাপি।
কন্যা হোক পুত্র হোক, আগে সে বাধুক মানুষের সুর
মানুষ বিচারে পুত্র কন্যা বাছাই হয়ে যাক দূর।

আমরা যেন সব সন্তানদের একই পাল্লায় মাপি।
কন্যা হোক পুত্র হোক, আগে সে বাঁধুক মানুষের সুর
মানুষ বিচারে পুত্র কন্যা বাছাই হয়ে যাক দূর।

এমআরএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]