গুরবাজের বিধ্বংসী ব্যাটিং, চট্টগ্রামকে উড়িয়ে দিলো খুলনা

ক্রীড়া প্রতিবেদক প্রকাশিত: ০৯:৪৯ পিএম, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯
গুরবাজের বিধ্বংসী ব্যাটিং, চট্টগ্রামকে উড়িয়ে দিলো খুলনা

লক্ষ্য খুব বড় ছিল না। তবে ১৪৫ রানের লক্ষ্যকে টি-টোয়েন্টিতে একেবারে ফেলনা বলারও উপায় নেই। কিন্তু খুলনা টাইগার্সের ব্যাটসম্যানরা এই রানকে পাত্তাই দিলেন না। মিরপুরে ব্যাটিং দাপট দেখিয়ে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সকে ৩৭ বল আর ৮ উইকেট হাতে রেখেই হারিয়ে দিয়েছে মুশফিকুর রহীমের দল।

অথচ রান তাড়ায় নেমে শুরুতেই নাজমুল হোসেন শান্তকে (৪) হারিয়ে ধাক্কা খেয়েছিল খুলনা। পরের ব্যাটসম্যানরা রীতিমত তাণ্ডব চালালেন চট্টগ্রামের বোলারদের ওপর। ১৯ বলে ৪ বাউন্ডারি আর ৫ ছক্কায় ৫০ রানের বিধ্বংসী এক ইনিংস খেলেন রহমানুল্লাহ গুরবাজ।

তৃতীয় উইকেটে ৪৭ বলে ৭২ রানের এক জুটিতে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছেড়েছেন মুশফিক আর রাইলি রুশো। ৩৮ বলে ৭ চার আর ২ ছক্কায় রুশো অপরাজিত থাকেন ৬৪ রানে। ২২ বলে ৪ বাউন্ডারিতে ২৮ রানে অপরাজিত ছিলেন মুশফিক।

এর আগে চট্টগ্রামের ওপরের সারির কোনো ব্যাটসম্যানই বলার মতো কিছু করতে পারেননি। তবে শেষদিকে ছোটখাটো এক ঝড় তুলেন অলরাউন্ডার মুক্তার আলী। ৪ ছক্কায় ১৪ বলে তার ২৯ রানের হার না মানা ইনিংসে ভর করেই ৬ উইকেটে ১৪৪ রানের লড়াকু পুঁজি পায় চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স।

টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন খুলনা অধিনায়ক মুশফিকুর রহীম। দলের বোলাররা অধিনায়কের সিদ্ধান্তের যৌক্তিকতা ঠিকই প্রমাণ করে দিয়েছেন। ফ্রাইলিংক-বিপ্লবদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে হাত খুলে খেলতে পারেননি চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের ব্যাটসম্যানরা।

চট্টগ্রামের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে কেউ ত্রিশের ঘরও ছুঁতে পারেননি। ওপেনার লেন্ডল সিমন্স ২৩ বলে ২৬, নাসির হোসেন ২৭ বলে ২৪, নুরুল হাসানের ব্যাট থেকে আসে ১৭ বলে ১৯ রান।

শেষদিকে মুক্তার আলী ঝড়ো ব্যাটিং না করলে লড়াকু পুঁজিটাও পাওয়া হতো না চট্টগ্রামের। মুক্তারের সঙ্গে ৩ বলে ৬ রানে অপরাজিত থাকেন লোয়ার অর্ডারের রুবেল হোসেন।

খুলনার পক্ষে একটি করে উইকেট নিয়েছেন রবি ফ্রাইলিংক, শফিউল ইসলাম, আমিনুল বিপ্লব আর শহিদুল ইসলাম।

এমএমআর/এমকেএইচ

সর্বশেষ - খেলাধুলা

জাগো নিউজে সর্বশেষ

জাগো নিউজে জনপ্রিয়