1. Home/
  2. খেলাধুলা

এখন চুপ থাকার সময় নয়, আওয়াজ তুলুন : স্যামি

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশিত: ১১:৪৭ এএম, ০২ জুন ২০২০

পুরো যুক্তরাষ্ট্র এখন উত্তাল আফ্রিকান-আমেরিকান জর্জ ফ্লয়েডের হত্যার ঘটনায়। স্রেফ কৃষ্ণাঙ্গ হওয়ার কারণে কোনরকমের বিচারকার্য ছাড়াই ফ্লয়েডকে হাঁটুর নিচে পিষে হত্যা করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের মিনেসোটা অঙ্গরাজ্য পুলিশ সদস্য ডেরেক চাওভিন।

ফ্লয়েডকে হত্যার ভিডিও ভাইরাল হতেই সারাবিশ্বে সাড়া পড়ে গেছে এর বিরুদ্ধে। বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্রে চলছে বর্ণবাদ বিরোধী আন্দোলন। যাতে নিজেদের সমর্থন প্রকাশ করেছে অনেক ফুটবল ক্লাব ও ক্রীড়া ব্যক্তিত্বরা।

তবে সে অর্থে ক্রিকেট বিশ্ব এখনও এ বিষয়ে তেমন কিছু বলেনি। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের পক্ষ থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেয়া এক বার্তায় বর্ণবাদের বিরুদ্ধে নিজেদের অবস্থার পরিষ্কার করা হয়েছে। এছাড়া আইসিসি বা অন্যান্য ক্রিকেট বোর্ড এখনও বেশ নীরব।

যা বেশ পীড়া দিচ্ছে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক অধিনায়ক ড্যারেন স্যামিকে। তিনি চান ক্রিকেট বিশ্ব এখন এই আন্দোলনে সরব ভূমিকা পালন করুক। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এ বিষয়ে বিশদ এক বার্তা দিয়েছেন স্যামি।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে দুইবারের বিশ্ব টি-টোয়েন্টি চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ক লিখেছেন, ‘আমার ভাইকে (জর্জ ফ্লয়েড) পায়ের তলায় পিষে হত্যার করার ভিডিও দেখার পরেও যদি বর্ণবাদের বিরুদ্ধে এখন যদি ক্রিকেট বিশ্ব আওয়াজ না তোলে, উঠে না দাঁড়ায়, তাহলে বুঝতে হবে আপনিও সমস্যার একটা অংশ।’

বর্ণবাদী শুধু এবারই প্রথম নয়, এটি প্রতিদিনই সহ্য করতে হয় জানিয়েছেন স্যামি। এর আগে সোমবার একই কথা লিখেছিলেন তার ক্যারিবীয় সতীর্থ ক্রিস গেইলও। তার মতো বিশ্ব তারকাকেও বর্ণবাদের শিকার হতে হয়েছে অনেকবার

এ বিষয়ে স্যামি লিখেছেন, ‘আইসিসি এবং অন্যান্য ক্রিকেট বোর্ডরা কি দেখতে পাচ্ছে না, আমার মতো (কৃষ্ণাঙ্গ) মানুষদের সঙ্গে কী হচ্ছে? আমার মতো মানুষদের বিরুদ্ধে হওয়া সামাজিক অন্যায়ের বিরুদ্ধে কথা বলবেন না আপনারা? এটা শুধু আমেরিকার বিষয় নয়, এটা প্রতিদিন হয়। কৃষ্ণাঙ্গদের জীবনও মূল্যবান।’

সবাইকে আওয়াজ তোলার আহ্বান জানিয়ে তিনি লিখেছেন, ‘এখন চুপ থাকার সময় নয়, আমি আপনাদের শুনতে চাই, আওয়াজ তুলুন। দীর্ঘদিন ধরেই কৃষ্ণাঙ্গ মানুষেরা এসব সহ্য করছে। আমি এখন সেইন্ট লুসিয়াতে আছি এবং আমি খুবই হতাশ হবো যদি আপনারা আমাকে সতীর্থ হিসেবে দেখেন কিন্তু জর্জ ফ্লয়েডের ঘটনায় চুপ থাকেন। আপনি কি সমর্থন প্রকাশ করে পরিবর্তনের অংশ হবেন?’

এসএএস/জেআইএম