জনকণ্ঠের চাকরিচ্যুতদের পুনর্বহালে সরকারের হস্তক্ষেপ চায় বিএফইউজে

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১২:০৩ পিএম, ০৮ মে ২০২১

জনকণ্ঠের চাকরিচ্যুত সাংবাদিক-কর্মচারীদের ঈদের আগেই পুনর্বহালের দাবি করেছে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে)। একই সঙ্গে মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের জনকণ্ঠ দৈনিকটির সংকট সমাধানে সরকারের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে বিএফইউজে।

শনিবার (৮ মে) এক বিবৃতিতে বিএফইউজের সভাপতি মোল্লা জালাল ও ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব আবদুল মজিদ এ দাবি জানান। বিবৃতিতে তারা জনকণ্ঠের সঙ্কট সমাধানে ঈদের আগেই ত্রিপক্ষীয় বৈঠক আয়োজনের জন্য তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদের প্রতি আহ্বান জানান।

বিএফইউজের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব আবদুল মজিদ স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিবৃতিতে বিএফইউজের এই শীর্ষ দুই নেতা বলেন, ‘করোনাকালে কাউকে চাকরিচ্যুত না করার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানকে উপেক্ষা করে চলেছেন দেশের অধিকাংশ গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানের মালিকরা। জনকণ্ঠসহ দেশের অধিকাংশ গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানে সাংবাদিক ছাঁটাই, পাওনা বুঝে না দেয়া, বেতন নিয়মিত না দেয়া ও বোনাস প্রদান না করায় গভীর উদ্বেগ জানিয়েছেন তারা।

পবিত্র ঈদুল ফিতরের আগেই জনকণ্ঠসহ দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানে ছাঁটাই হওয়া সাংবাদিকদের পুনর্বহাল দাবি করেন তারা। জনকণ্ঠের চাকরিচ্যুত সাংবাদিকদের পুনর্বহাল না করে পত্রিকাটির এক প্রতিবেদনে ওই সাংবাদিকদের ‘সন্ত্রাসী’ হিসেবে উল্লেখ করায় তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ জানান তারা।

মোল্লা জালাল ও আবদুল মজিদ বিবৃতিতে বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানটি ধবংস করে দেয়ার গভীর ষড়যন্ত্র চলছে। বেছে বেছে মুক্তিযুদ্ধের আদর্শে বিশ্বাসী সাংবাদিক-কর্মচারীদের ছাঁটাই করা হচ্ছে। মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের শক্তি যখন ক্ষমতায় তখন জনকণ্ঠ পত্রিকাটি থেকে মুক্তিযুদ্ধের আদর্শে বিশ্বাসী সাংবাদিক কর্মচারীদের ছাঁটাই মেনে নেবে না।’

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদকে ত্রিপক্ষীয় বৈঠক অনুষ্ঠানের আহ্বান জানিয়ে বিএফইউজের শীর্ষ নেতৃত্ব বলেন, ‘জনকণ্ঠের চাকরিচ্যুত সাংবাদিকদের ঈদের আগেই পুনর্বহাল করতে হবে এবং পাওনা, বেতন ও বোনাস বুঝে দিতে হবে। তা নাহলে ঈদের পর জনকণ্ঠসহ কৃত্রিম সঙ্কট তৈরি করে রাখা গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানগুলোর মালিকদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিতে সরকারকে বাধ্য করতে কঠোর আন্দোলনে যাবে বিএফইউজে।

এমইউ/ইএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]