নির্ভীক-বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতায় সমাজ-রাষ্ট্র উপকৃত হয়: তথ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:০৫ পিএম, ১০ অক্টোবর ২০২১

নির্ভীক ও বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতায় সমাজ এবং রাষ্ট্র উপকৃত হয় বলে উল্লেখ করেছেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

এ বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী দুই সাংবাদিক ফিলিপাইনের মারিয়া রেসা ও রাশিয়ার দিমিত্রি মুরাতফকে অভিনন্দন জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ৮৬ বছর পর দুজন সাংবাদিক নোবেল শান্তি পুরস্কার পেলেন। এজন্য তারা সবার অভিনন্দন পাওয়ার যোগ্য। তারা সব ভয়ভীতি ও লোভ-লালসার ঊর্ধ্বে উঠে সত্যপ্রকাশের যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন, তাতে বিশ্বের সাংবাদিকরা উৎসাহিত হবেন।

রোববার (১০ অক্টোবর) সন্ধ্যায় রাজধানীর ঢাকা ক্লাবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ এবাদুল করিমের পক্ষ থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাবকে উপহার দেওয়া গাড়ির চাবি হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তথ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

হাছান মাহমুদ বলেন, সাংবাদিকদের অনেক ক্ষমতা। সমাজের উন্মোচন না হওয়া বিষয়, মানুষের অব্যক্ত বেদনা তারা তুলে ধরতে পারেন। প্রান্তিক পর্যায়ের সাংবাদিকরা এক্ষেত্রে বিশেষ ভূমিকা রাখতে সক্ষম। সাংবাদিকদের এ কাজে সমাজ ও রাষ্ট্র উপকৃত হয়।

এসময় তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. মুরাদ হাসান সাংবাদিকদের গাড়ি দেওয়ার উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনা মহামারি মোকাবিলা করে বিশ্বের সেরা প্রধানমন্ত্রী হিসেবে উপনীত হয়েছেন।

পরে তথ্যমন্ত্রী অতিথিদের নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাবের সভাপতি রিয়াজ উদ্দিনের হাতে গাড়ির স্মারক চাবি তুলে দেন।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য মোহাম্মদ এবাদুল করিমের সভাপতিত্বে এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ (সদর ও বিজয়নগর) আসনের সংসদ সদস্য র. আ. ম. উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী।

আইএইচআর/এমকেআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]