হাতি নিয়ে আনন্দ শোভাযাত্রা

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:২৫ এএম, ২৫ নভেম্বর ২০১৭

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্ব ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়ায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত আনন্দ শোভাযাত্রায় হাতি নিয়ে এসেছেন মিরপুরের ১৬ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দারা।

স্থানীয় কাউন্সিলর মতিউর রহমান মোল্লার নেতৃত্বে শতাধিক কর্মী-সমর্থক শনিবার দুপুর ২টা২০ মিটিটের দিকে হাতিটি নিয়ে টিএসসি চত্বরে আসে। হাতির গায়ে বিভিন্ন আলপনা আঁকা রয়েছে।

eliphant3

বঙ্গবন্ধুর সেই জ্বালাময়ী ভাষণ ‘রক্ত যখন দিয়েছি রক্ত আরও দেবো, এ দেশের মানুষকে মুক্ত করে ছাড়বো ইনশাআল্লাহ’ হাতির পিঠে একটি ব্যানার ঝুলিয়ে দেয়া হয়েছে।

শোভাযাত্রায় অংশ নেয়া শ্রমিকলীগ নেতা বশির বলেন, হাতিটি ৬০ হাজার টাকা দিয়ে ভাড়া করা হয়েছে। আমরা কচুক্ষেত থেকে শুরু করে মিরপুর ১৪ ও ১০ হয়ে শেওড়াপাড়া দিয়ে ধানমন্ডি হয়ে এখানে এসেছি।

আরেক কর্মী আশরাফ বলেন, বঙ্গবন্ধুর ভাষণ বিশ্ব ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়ায় আমরা খুব খুশি। সেই খুশিতে আনন্দ শোভাযাত্রায় হাতি নিয়ে এসেছি। আশা ছিল হাতি নিয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে যাবো। কিন্তু সেই আশা পূরণ হলো না। কারণ গেট দিয়ে হাতিকে প্রবেশ করতে দিচ্ছে না।

eliphant3

উল্লেখ্য, গত ৩০ অক্টোবর ইউনেস্কো ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে দেয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণকে বিশ্ব ঐতিহ্যের প্রামাণ্য দলিল হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। সে উপলক্ষে এ আনন্দ শোভাযাত্রার আয়োজন।

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের সভায় বিকেল ৩টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। স্বাগত বক্তব্যের পর ৭ মার্চের ভাষণের প্রেক্ষাপট বর্ণনা করে ভাষণটি বাজানো হবে। প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের পর শুরু হবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। লেজার শো’র মাধ্যমে শেষ হবে আনন্দ শোভাযাত্রা পরবর্তী সভা।

এসআই/এমএএস/আরএমএম/বিএ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :