ট্রেন দুর্ঘটনায় পঙ্গু রাজু সংসার যুদ্ধে ‘বোবা’ সৈনিক

মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল
মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল , বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১১:১৩ এএম, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭ | আপডেট: ১১:২২ এএম, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭
ট্রেন দুর্ঘটনায় পঙ্গু রাজু সংসার যুদ্ধে ‘বোবা’ সৈনিক

‘ও মাই গড। আমি কি স্বপ্ন দেখছি। আশ্চর্য ব্যাপার ! অ্যাই যে শুনছেন, আপনাকে বলছি। আপনি কথা বলতে পারেন?’ সোমবার দুপুরে রাজধানীর নিউ ইস্কাটন রোডের রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে এক যুবককে এ প্রতিবেদকের সঙ্গে কথা বলতে দেখে রাজ্যের বিস্ময়ভরা কণ্ঠে এক তরুণী এ প্রশ্ন করেন।

চেক লুঙ্গি ও সাদা গেঞ্জি পরিহিত যুবকের মুখে কথা নেই। কৌতুহলবশত নাম পরিচয় জানতে চাইলে নাসরিন হক নামের এক তরুণী নিজেকে ধানমন্ডি এলাকার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে বলেন, এ যুবককে তিনি বিভিন্ন সময় ধানমন্ডি, জিগাতলা, এলিফ্যান্ট রোড ও শাহবাগসহ বিভিন্ন বাস স্টপেজে বোবা সেজে লোকজনের কাছ থেকে সাহায্য নিতে দেখেছেন। বোবা হিসেবে তার অঙ্গভঙ্গি আওয়াজ এখনও তার কানে বাজছে। তাকে সাধারণ মানুষের মতো কথা বলতে দেখে তিনি একাধারে বিস্মিত ও হতভম্ব।

jagonews24

এর কিছুক্ষণ আগেই এ প্রতিবেদক মিন্টু রোডের রাস্তা ধরে ওই যুবককে এক পায়ে প্যাডেল মেরে সাইকেল চালাতে দেখে নিউ ইস্কাটন রোডের সামনে থামিয়ে কথা বলছিলেন। এ সময় ওই যুবক নিজেকে শাহবাগ এলাকার ভাসমান ফুল বিক্রেতা পরিচয় দেন।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে কথা বলার এক পর্যায়ে ওই তরুণী বলে উঠেন, এদেরকে পুলিশে ধরিয়ে দেয়া উচিত। এ কথা শুনে ওই যুবক উত্তেজিত হয়ে উঠে বলেন, ‘যান পুলিশকে খবর দেন, পুলিশ আমার কিছুই করতে পারবো না।’ আমি পঙ্গু, শখ কইরা বোবার অভিনয় করি না। ঘরে বউ, দুই বাচ্চা। অগো মুখে খাওন তুলনের লাইগ্যা প্রতিদিন বোবা সাইজ্যা সাহায্য নেই।’

যুবক আরও বলেন, ‘এমনি পঙ্গু কইলে সাহায্য দেয় না। তাই বোবা সাজি।’

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে রাজু নামের ওই যুবক জানান, তার গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহ জেলায়। ঢাকায় মগবাজারে ভাড়া বাসায় থাকেন। ১৫ বছর আগে ট্রেনের ছাদে চড়ে বাড়ি থেকে ঢাকায় আসার পথে পা পিছলে ট্রেনের বগির ফাঁক দিয়ে পড়ে যান। কাটা পড়ে এক পা। এক হাত ভেঙে চুরমার হয়ে যায়। হাসপাতালে নেয়ার পর এক পা কোমর পর্যন্ত কেটে ফেলা হয়। বছর খানেক চিকিৎসা ও অস্ত্রোপচারের পর হাতটা সচল হয়।

jagonews24

রাজুর ভাষ্য অনুসারে, সে সকাল বেলা শাহবাগের পাইকারি মার্কেট থেকে ফুল কিনে খুচরা বিক্রেতাদের কাছে বিক্রি করে। সংসারের খরচ যোগাতে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত বোবার অভিনয় করে টাকা সাহায্য নেন। বোবাদের দেখে দেখে তাদের অঙ্গভঙ্গি শিখেছেন। বোবার অভিনয় করে প্রতিদিন গড়ে ৪শ’ টাকা থেকে ৬শ’ টাকা বোনাস ইনকাম করেন। এক পায়ে সাইকেল চালিয়ে বাসা থেকে যাতায়াত করেন।

‘আমার ব্যাপারে খারাপ কিছু লিখবেন নাকি, দেইখেন আমার যেন কোনো ক্ষতি না হয়। পেডের দায়ে বোবার অভিনয় করি।’ এ কথা বলে সেখান থেকে চলে যান রাজু।

এমইউ/এমআরএম/আরআইপি