জঙ্গিদের ‘ডিমোটিভেটেড’ করতে হবে কারাগার থেকেই

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:০৮ পিএম, ২১ জানুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ০৪:৪৭ পিএম, ২১ জানুয়ারি ২০১৮
জঙ্গিদের ‘ডিমোটিভেটেড’ করতে হবে কারাগার থেকেই
ফাইল ছবি

কারাগারে সাধারণ বন্দিদের সঙ্গে জঙ্গিদের রাখা হয় না দাবি করে কারা মহাপরিদর্শক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সৈয়দ ইফতেখার উদ্দীন বলেছেন, দণ্ডপ্রাপ্ত জঙ্গিদের সঙ্গে ওয়ারেন্টের নথিপত্র সঠিক সময়ে কারা কর্তৃপক্ষকে না দেয়ায় জঙ্গিদের শনাক্ত করা যাচ্ছে না। যে কারণে তাদের সাধারণ বন্দিদের সঙ্গে রাখা হয়। তবে বিষয়টি জানার পর জঙ্গিদের আলাদাভাবে রাখা হয়।

সম্প্রতি একটি দৈনিক পত্রিকায় সাধারণ বন্দিদের সঙ্গে জঙ্গিদের বসবাস ও জঙ্গিবাদে মোটিভেটেড করা হচ্ছে এমন সংবাদ প্রকাশের পর কারা অধিদফতরের প্রধান কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, কোর্ট ইন্সপেক্টর জেল ওয়ারেন্টের সঙ্গে জঙ্গি শনাক্তকারী কাগজ না পাঠানোয় দুই থেকে তিন মাস সময় লেগে যায় জঙ্গি শনাক্ত করতে।

সৈয়দ ইফতেখার উদ্দীন বলেন, শনাক্ত করা সব জঙ্গিদের নিজ নিজ সংগঠন অনুযায়ী একই সেলে রাখা হয়। তাই তারা নিজেদের সঙ্গে আলোচনা করতে পারলেও অন্য সংগঠন বা সাধারণ বন্দিদের মোটিভেট করার সুযোগ পায় না।

না জানার কারণে জঙ্গিরা দুই-তিন মাস এক সঙ্গে থাকার সুযোগে সাধারণ বন্দিদেরর মটিভেট করছে কি-না জানতে চাইলে আইজি প্রিজন বলেন, ৫৪টি কারাগারে সাত হাজার বন্দি রয়েছে। এদের মধ্যে জঙ্গির সংখ্যা ছয়শ। এক সঙ্গে থাকার সুযোগটা জঙ্গিরা নিতে পারে। মোটিভেটেড করার চেষ্টাও করে থাকতে পারে। তবে সুযোগ খুব কম। নজরদারি তো থাকেই।

জঙ্গিদের ডিমোটিভেটেড করার পরিকল্পনা আছে কি-না এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সরকারের পরিকল্পনা থাকতে পারে। তবে ডিমোটিভেটেড প্রক্রিয়া নিতে হবে কারাগারের ভেতর থেকেই। এর জন্য কারা কর্তৃপক্ষের নিজেদের সক্ষমতা বৃদ্ধি করতে হবে বলে জানান তিনি।

জেইউ/এএইচ/আইআই