আয়-বৈষম্য দূর না হলে উন্নয়ন মুখ থুবড়ে পড়বে

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:২৫ পিএম, ২২ মে ২০১৮

ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি ও সমাজকল্যাণ মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন বলেছেন, বাংলাদেশ এখন নিম্নআয়ের দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হয়েছে। কিন্তু এদেশের মানুষের মধ্যে এখনো আয়-বৈষম্য রয়ে গেছে। এই আয়-বৈষম্য দূর না হলে উন্নয়ন মুখ থুবড়ে পড়বে।

মঙ্গলবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে কার্লমার্ক্সের জন্মদ্বীশতবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন।

রাশেদ খান বলেন, পদ্মাসেতু, মেট্রোরেল, বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপন দেশের উন্নয়নের বাস্তব প্রমাণ। ধারাবাহিক উন্নয়নে আগের চেয়ে অনেকাংশে প্রবৃদ্ধি লক্ষ্যমাত্রা বৃদ্ধি পেয়েছে। এসডিজি লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের তালিকায় বাংলাদেশ স্বাক্ষর করেছে। তবে এখনও পর্যন্ত বাংলাদেশের কৃষক শ্রমিকের ন্যূনতম মজুরি নির্ধারিত হয়নি।

তিনি বলেন, আমাদের দেশের কৃষক শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ এবং তাদের অধিকার নিশ্চিত করতে কার্লমার্ক্সের নীতির প্রয়োজন। তার নীতিকে ধারণ করা প্রয়োজন।

ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি বলেন, কয়েকদিন থেকে পত্রপত্রিকায় দেখা যাচ্ছে, সৌদি আরব থেকে দলে দলে নারীরা ফিরে আসছেন। কারণ তারা সেখানে নির্যাতিত হচ্ছে। পাশাপাশি বাংলাদেশে এখন কর্মসংস্থানের অভাব এবং মাদকাসক্তি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। আজকের পৃথিবীতে নারী মুক্তি এবং মাদকাসক্তি থেকে পরিত্রাণ পাওয়া অনেক জরুরি। বিষয়গুলো থেকে বাঁচার পথ খুঁজতে প্রয়োজন কার্লমার্ক্সের নীতি।

এ সময় কার্লমার্ক্সের চেতনা ধারণ করে এদেশকে সুখ ও শান্তির দেশে পরিণত করার আশাবাদ ব্যাক্ত করেন তিনি।

এ সময় সভায় উপস্থিত ছিলেন পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা, সুশান্ত দাশ, ড মেজবাহ কামাল, সামসুল হুদা প্রমুখ।

এইউএ/জেএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :