শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনে সোয়া ২ কোটি টাকা দিল দুটি প্রতিষ্ঠান

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:২৯ পিএম, ১০ জুলাই ২০১৮

শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে গত বছরের (২০১৭) লভ্যাংশের ২ কোটি ২৩ লাখ ৮২ হাজার ১৯৮ টাকা দিয়েছে দুটি সরকারি প্রতিষ্ঠান। এর মধ্যে মেঘনা পেট্রোলিয়াম লিমিটেড দিয়েছে এক কোটি ৫৬ লাখ ৫৩ হাজার ৯৯১ টাকা এবং ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) দিয়েছে ৬৭ লাখ ২৮ হাজার ২০৭ টাকা।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক চুন্নুর কাছে প্রতিষ্ঠান দুটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা লভ্যাংশের চেক হস্তান্তর করেন।

২০০৬ সালের শ্রম আইন (২০১৩ সালে সংশোধিত) অনুযায়ী, ২ কোটি টাকার বেশি মূলধনী প্রতিষ্ঠানের এক বছরের নিট লভ্যাংশের ৫ শতাংশের মধ্যে চার শতাংশ অর্থ নিজ কোম্পানির শ্রমিকদের জন্য বরাদ্দ থাকে। বাকি এক শতাংশের অর্ধেক প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব শ্রমিক কল্যাণ তহবিলে, বাকি অর্ধেক শ্রম মন্ত্রণালয়ের অধীন শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের তহবিলে জমা দিতে হয়। এ তহবিল থেকেই প্রাতিষ্ঠানিক, অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতে নিয়োজিত শ্রমিকদের কল্যাণে অর্থসহায়তা দেয় সরকার।

srom-2

চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানে শ্রম প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে আমরা অসহায় শ্রমিকদের ২৪ কোটি টাকা সহায়তা দিয়েছি। বর্তমানে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে ৩০৫ কোটি টাকা রয়েছে।’

লাভজনক বিভিন্ন গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানসহ সরকারি-বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠানকে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন আইন মেনে চালার অনুরোধ জানিয়ে শ্রম প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘সবাই ফাউন্ডেশন তহবিলে অর্থ দিলে কেউ আর কোনো অসহায় শ্রমিক থাকবে না।’

এসময় শ্রম ও কর্মসংস্তান সচিব আফরোজা খান, শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক আনিসুল আওয়াল, মেঘনা পেট্রোলিয়ামের জেনারেল ম্যানেজার (মার্কেটিং) আহমেদ শহীদুল হক, ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান সৈয়দ আল আমিন রহমানসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আরএমএম/এমবিআর/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :